ঢাকা,বৃহস্পতিবার,১৪ অগ্রহায়ণ ১৪২৮,২৯,জুলাই,২০২১
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
শিরোনাম : * জীবনের সুরক্ষার অনিবার্য প্রয়োজনেই লকডাউন : সেতুমন্ত্রী   * বাংলাদেশের আর্থ-সামাজিক উন্নয়নে চীন বিশ্বস্ত অংশীদার: প্রধানমন্ত্রী   * দেশবাসীকে ‘কঠোর লকডাউন’ মেনে চলার অনুরোধ তথ্যমন্ত্রীর   * করোনায় একদিনে রেকর্ড মৃত্যু ১৪৩, শনাক্ত ৮৩০১   * অভ্যন্তরীণ সব রুটে বিদেশগামীরা ফ্লাইট সুবিধা পাবে   * লকডাউনের প্রথমদিনেই রাজধানীতে আটক-গ্রেফতার ৭৫৫   * শপথ নিলেন মিন্টু ও হাসেম খান   * রিজার্ভ থেকে ঋণ দিয়ে বাড়তি আয়, মন্দ নয় : অর্থমন্ত্রী   * আরো ৫৩ হাজার ৩৪০টি পরিবারকে বিনামূল্যে ঘর প্রদান করলেন প্রধানমন্ত্রী   * বয়সের কারণে মনে হয় মির্জা ফখরুলের মতিভ্রম ঘটেছে  

   আন্তর্জাতিক -
                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                 
ব্ল্যাক-হোয়াইটের পর এবার ভারতে ইয়েলো ফাঙ্গাসের সংক্রমণ

অনলাইন ডেস্ক :

করোনার আবহে ভারতজুড়ে ব্ল্যাক এবং হোয়াইট ফাঙ্গাসের সংক্রমণ বৃদ্ধিতে উদ্বেগ তো ছিলই। এবার দেশটির স্বাস্থ্যকর্তাদের চিন্তায় ফেলেছে ইয়েলো ফাঙ্গাস। সোমবার (২৪ মে) উত্তর প্রদেশের গাজিয়াবাদ শহরে ওই ফাঙ্গাসে আক্রান্ত এক রোগীর সন্ধান পাওয়া গিয়েছে বলে জানিয়েছে পশ্চিমবঙ্গের পত্রিকা আনন্দবাজার। 

প্রতিবেদনে বলা হয়, উত্তরপ্রদেশ প্রশাসন সূত্রে খবর, এই প্রথম দিল্লি সংলগ্ন গাজিয়াবাদের একটি বেসরকারি হাসপাতালে ইয়েলো ফাঙ্গাসের সংক্রমণ নিয়ে এক রোগীকে ভর্তি করানো হচ্ছে। চিকিৎসকদের একাংশের মতে, ব্ল্যাক বা হোয়াইট ফাঙ্গাসের থেকেই আরও ভয়াবহ হতে পারে ইয়েলো ফাঙ্গাস।

চিকিৎসকেরা জানিয়েছেন, সাধারণত সংক্রমিতের ওজন কমে যাওয়া, ক্লান্তিভাব, খিদে না পাওয়ার মতো লক্ষণ দেখা যায়। সংক্রমণ বাড়তে থাকলে রোগীর দেহে পূঁজ ফেটে যাওয়ার মতো উপসর্গও দেখা গিয়েছে। এ ছাড়া, ক্ষত থাকলে তা না সারা বা শুকোতেও সময় লাগে বলে জানিয়েছেন চিকিৎসকেরা। সেই সঙ্গে, চোখ বসে যাওয়ার মতো লক্ষণও দেখা দেয়। শেষমেশ সংক্রমিতের দেহে অঙ্গপ্রত্যঙ্গ বিকল হয়ে পচন ধরে বলে জানা গিয়েছে।

ইয়েলো ফাঙ্গাসের সংক্রমণ দেহের ভিতরে প্রভাব বিস্তার করে বলে চিকিৎসকেরা একে ব্ল্যাক বা হোয়াইট ফাঙ্গাসের তুলনায় ক্ষতিকর বলে দাবি করছেন। এই ফাঙ্গাসের উপসর্গ দেখা দিলে তৎক্ষণাৎ চিকিৎসা শুরু করা উচিত বলে পরামর্শ দিচ্ছেন তাঁরা। চিকিৎসকদের মতে, স্বাস্থ্যবিধিতে অবহেলা করলে এই ফাঙ্গাসের সংক্রমণ দেখা দিতে পারে। সেই সঙ্গে বাসি খাবার খাওয়া বা অত্যন্ত বেশি আর্দ্র পরিবেশে থাকলেও এতে আক্রান্ত হওয়ার সম্ভাবনা বাড়তে পারে।

ব্ল্যাক-হোয়াইটের পর এবার ভারতে ইয়েলো ফাঙ্গাসের সংক্রমণ
                                  

অনলাইন ডেস্ক :

করোনার আবহে ভারতজুড়ে ব্ল্যাক এবং হোয়াইট ফাঙ্গাসের সংক্রমণ বৃদ্ধিতে উদ্বেগ তো ছিলই। এবার দেশটির স্বাস্থ্যকর্তাদের চিন্তায় ফেলেছে ইয়েলো ফাঙ্গাস। সোমবার (২৪ মে) উত্তর প্রদেশের গাজিয়াবাদ শহরে ওই ফাঙ্গাসে আক্রান্ত এক রোগীর সন্ধান পাওয়া গিয়েছে বলে জানিয়েছে পশ্চিমবঙ্গের পত্রিকা আনন্দবাজার। 

প্রতিবেদনে বলা হয়, উত্তরপ্রদেশ প্রশাসন সূত্রে খবর, এই প্রথম দিল্লি সংলগ্ন গাজিয়াবাদের একটি বেসরকারি হাসপাতালে ইয়েলো ফাঙ্গাসের সংক্রমণ নিয়ে এক রোগীকে ভর্তি করানো হচ্ছে। চিকিৎসকদের একাংশের মতে, ব্ল্যাক বা হোয়াইট ফাঙ্গাসের থেকেই আরও ভয়াবহ হতে পারে ইয়েলো ফাঙ্গাস।

চিকিৎসকেরা জানিয়েছেন, সাধারণত সংক্রমিতের ওজন কমে যাওয়া, ক্লান্তিভাব, খিদে না পাওয়ার মতো লক্ষণ দেখা যায়। সংক্রমণ বাড়তে থাকলে রোগীর দেহে পূঁজ ফেটে যাওয়ার মতো উপসর্গও দেখা গিয়েছে। এ ছাড়া, ক্ষত থাকলে তা না সারা বা শুকোতেও সময় লাগে বলে জানিয়েছেন চিকিৎসকেরা। সেই সঙ্গে, চোখ বসে যাওয়ার মতো লক্ষণও দেখা দেয়। শেষমেশ সংক্রমিতের দেহে অঙ্গপ্রত্যঙ্গ বিকল হয়ে পচন ধরে বলে জানা গিয়েছে।

ইয়েলো ফাঙ্গাসের সংক্রমণ দেহের ভিতরে প্রভাব বিস্তার করে বলে চিকিৎসকেরা একে ব্ল্যাক বা হোয়াইট ফাঙ্গাসের তুলনায় ক্ষতিকর বলে দাবি করছেন। এই ফাঙ্গাসের উপসর্গ দেখা দিলে তৎক্ষণাৎ চিকিৎসা শুরু করা উচিত বলে পরামর্শ দিচ্ছেন তাঁরা। চিকিৎসকদের মতে, স্বাস্থ্যবিধিতে অবহেলা করলে এই ফাঙ্গাসের সংক্রমণ দেখা দিতে পারে। সেই সঙ্গে বাসি খাবার খাওয়া বা অত্যন্ত বেশি আর্দ্র পরিবেশে থাকলেও এতে আক্রান্ত হওয়ার সম্ভাবনা বাড়তে পারে।

ইসরাইলের তেল আবিবের কেন্দ্রস্থলে হামাসের রকেট হামলা
                                  

অনলাইন ডেস্ক :

ফিলিস্তিনের গাজা উপত্যকা থেকে ইসলামি প্রতিরোধ আন্দোলন হামাসের নিক্ষিপ্ত রকেট ইসরাইলের রাজধানী তেল আবিবের কেন্দ্রস্থলে আঘাত হেনেছে। একইসঙ্গে এসব রকেট তেল আবিবের আকাশ দিয়ে উড়ে গিয়ে দূরবর্তী হাইফা ও নাজারেথ শহরেও আঘাত হেনেছে। খবর টাইমস অব ইসরাইল।

হামাসের সামরিক শাখা ইজ্জাদ্দিন কাসসাম ব্রিগেড ঘোষণা করেছে, বৃহস্পতিবার ভোরে নতুন করে অসংখ্য রকেট নিক্ষেপ করা হয়েছে। গাজা উপত্যকার বেসামরিক অবস্থানে ইসরাইলি বিমান ও ক্ষেপণাস্ত্র হামলার জবাবে এসব রকেট নিক্ষেপ করা হয়েছে বলে ওই ব্রিগেড জানিয়েছে।

কাতার ভিত্তিক আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম আলজাজিরা জানিয়েছে, হামাসের রকেটের আঘাতে তেল আবিবের তিনটি ভবন ধসে পড়েছে। এ সময় সাইরেনের প্রচণ্ড শব্দে গোটা নগরীতে ভীতিকর পরিবেশ তৈরি হয়।

ইসরাইলি দৈনিক হারেতজ জানিয়েছে, একটি ভবনে হামাসের রকেট আঘাত হানলে পাঁচ ইসরাইলি আহত হয়েছে। এ সময় সেখানে বড় ধরনের অগ্নিকাণ্ড ঘটে এবং এলাকার বিদ্যুৎ সরবরাহ বিচ্ছিন্ন হয়ে যায়।

ইসরাইল গণমাধ্যমগুলো জানিয়েছে, বুধবার মধ্যরাতে তেল আবিবের কেন্দ্রস্থল ও এর নিকটবর্তী বেন গুরিয়ন আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর এলাকায় বেশ কয়েকটি বিস্ফোরণের শব্দ শোনা যায়। এ সময় চারদিকে ব্যাপকভাবে সাইরেন বেজে ওঠে।

ভারতে একদিনে করোনায় মারা গেছে ৪ হাজার ১২০ জন
                                  

অনলাইন ডেস্ক :

ভারতে গত ২৪ ঘন্টায় করোনায় নতুন করে ৩ লাখ ৬২ হাজার ৭২৭ জন আক্রান্ত এবং এ সময়ে ৪ হাজার ১২০ জনের মৃত্যু হয়েছে। এতে মোট আক্রান্তের সংখ্যা ২ কোটি ৩৭ লাখ ৩ হাজার ৬৬৫ জন এবং মৃত্যুর সংখ্যা মোট ২ লাখ ৫৮ হাজার ৩১৭ জনে দাঁড়িয়েছে। কেন্দ্রীয় স্বাস্থ্য মন্ত্রনালয় বৃহস্পতিবার এ কথা জানায়।

আক্রান্তদের মধ্যে ১ কোটি ৯৭ লাখ ৩৪ হাজার ৮২৩ জন করোনামুক্ত হয়েছে, মৃত্যুর হার ১.০৯ শতাংশ, সক্রিয় রোগীর সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৩৭ লাখ ১০ হাজার ৫২৫ জন, এই সংখ্যা মোট আক্রান্তের ১৫.৬৫ শতাংশ। করোনামুক্ত হওয়ার হার ৮৩.২৬শতাংশ। আইসিএমআর’র হিসাবে ভারতে ১ মে পর্যন্ত ৩০ কোটি ৯৪ লাখ ৪৮ হাজার ৫৮৫ জনের করোনার নমুনা টেস্ট হয়েছে।

ভারতে করোনা মোকাবেলায় মাঠে নেমেছে সেনাবাহিনী
                                  

অনলাইন ডেস্ক :

ভারতে করোনা মহামারি পুরো দেশকে মৃত্যুপুরীতে পরিণত করেছে। চরম বিপর্যয় ঠেকাতে দেশটির হাসপাতালগুলোতে সেনবাহিনীর সদস্যদের সাহায্য করতে নির্দেশনা দেওয়া হয়েছে। একই সঙ্গে সেনাবাহিনীর জন্য মজুত করা অক্সিজেন হাসপাতালগুলোতে সরবরাহের নির্দেশ দেওয়া হয়েছে। এ ছাড়া যুক্তরাজ্য, জার্মানি এবং যুক্তরাষ্ট্র থেকে জরুরি চিকিৎসা উপকরণ পাঠানো হয়েছে। খবর-টাইমস অব ইন্ডিয়া।

সোমবার ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির সঙ্গে উচ্চপর্যায়ের বৈঠক করেন দেশটির চিফ অব ডিফেন্স স্টাফ জেনারেল বিপিন রাওয়ান। বৈঠকের পরেই সেনাবাহিনীর প্রতি বিপিন রাওয়াত এই নির্দেশনা দেন।

হিন্দুস্তান টাইমসের খবরে বলা হয়েছে, গত দুই বছরে সশস্ত্র বাহিনী থেকে অবসর নেওয়া স চিকিৎসককে কাজে ফেরানো হচ্ছে। তাদের বাড়ির কাছে থাকা কোভিড সেন্টারে কাজ করার দায়িত্ব দেওয়া হয়েছে। এ ছাড়া সেনা থেকে অবসর নেওয়া নার্সিং স্টাফদেরও করোনা যুদ্ধে মোতায়েন করা হবে বলে জানিয়েছেন সিডিএস রাওয়াত।

জেনারেল বিপিন রাওয়াত প্রধানমন্ত্রীকে জানিয়েছেন, অবসরপ্রাপ্ত অন্য মেডিকেল স্টাফদের জরুরি হেল্পলাইনের মাধ্যমে পরিষেবা দেওয়ার জন্য অনুরোধ করা হয়েছে৷ সেনাবাহিনীর চিকিৎসা ব্যবস্থাকে সাধারণ মানুষ পর্যন্ত পৌঁছে দেওয়ার চেষ্টা চলছে৷

বৈঠকে কমান্ড সদর দপ্তর, কোর সদর দপ্তর, বিভাগীয় সদর দপ্তর এবং ভারতীয় নৌবাহিনী এবং বিমানবাহিনীর সদর দপ্তরে কর্মরত মেডিকেল অফিসারকে হাসপাতালে কোভিড মোকাবেলার জন্য নিযুক্ত করা হবে। হাসপাতালে চিকিৎসকদের সঙ্গে নার্সিং কর্মীদেরও প্রচুর সংখ্যায় নিয়োগের কথা বলা হয়েছে। 

করোনায় বিশ্বে মৃত্যু আরও ১৪ হাজার
                                  

অনলঅইন ডেস্ক :

মহামারী করোনার দ্বিতীয় ঢেউয়ের তাণ্ডবে বিশ্বব্যাপী গত ২৪ ঘণ্টায় আরও ১৪ হাজার ৩শ ৮১ জনের মৃত্যু হয়েছে। যার মধ্যে সবচেয়ে বেশি মারা গেছে ব্রাজিলে, ৪ হাজার ১৯০ জন। এসময়ে শনাক্ত হয়েছেন ৭ লাখ ৪৩ হাজার ২৬৯ জন। টিকা দেয়া হলেও মৃত্যুর মিছিল অব্যাহত থাকায় তাই চরম অস্বস্তিতে বিশ্ববাসী।

করোনা আক্রান্ত ও প্রাণহানির পরিসংখ্যান বিষয়ক ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডোমিটারের তথ্যানুযায়ী, আজ শুক্রবার সকাল পর্যন্ত বিশ্বে আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১৩ কোটি ৪৫ লাখ ৮ হাজার ৫৩২ জন এবং মৃত্যু ছাড়িয়েছে ২৯ লাখ ১৪ হাজার ৭৭৪ জন। অন্যদিকে, সুস্থ হয়ে বাড়ি ফিরেছেন ১০ কোটি ৮৩ লাখ ৪ হাজার ১১২ জন।

প্রাণঘাতী করোনায় এখন পর্যন্ত সবচেয়ে বেশি সংক্রমণ ও মৃত্যুর ঘটনা ঘটেছে বিশ্বের ক্ষমতাধর দেশ মার্কিন যুক্তরাষ্ট্রে। তালিকায় শীর্ষে থাকা দেশটিতে এখন পর্যন্ত সংক্রমিত হয়েছেন ৩ কোটি ১৭ লাখ ১৭ হাজার ৪০৪ জন। এর মধ্যে মৃত্যু হয়েছে ৫ লাখ ৭৩ হাজার ৮৫৬ জনের।

সংক্রমণে ও মৃত্যুতে দ্বিতীয় স্থানে থাকা দক্ষিণ আমেরিকার ফুটবল প্রিয় দেশ ব্রাজিলে এখন পর্যন্ত আক্রান্ত হয়েছে ১ কোটি ৩২ লাখ ৮৬ হাজার ৩২৪ জন এবং মারা গেছে ৩ লাখ ৪৫ হাজার ২৮৭ জন। দেশটিতে হু হু করে বাড়ছে মৃত্যু ও সংক্রমণ।

সংক্রমণে ১৪তম স্থানে থাকলেও মৃত্যুতে তৃতীয় স্থানে উঠে আসা দক্ষিণ আমেরিকার আরেক দেশ মার্কিন সীমান্তবর্তী মেক্সিকোতে এখন পর্যন্ত ২২ লাখ ৬৭ হাজার ১৯ জন সংক্রমিত হলেও মৃত্যুর সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ২ লাখ ৬ হাজার ১৪৬ জনে।

সংক্রমণে তৃতীয় এবং মৃত্যুতে চতুর্থ অবস্থানে থাকা এশিয়ার দেশ ভারতে এখন পর্যন্ত করোনায় ১ কোটি ৩০ লাখ ৫৭ হাজার ৯৫৪ জন আক্রান্ত হয়েছেন। যার মধ্যে মৃত্যু হয়েছে ১ লাখ ৬৭ হাজার ৬৯৪ জনের।

এদিকে, আক্রান্তের দিক থেকে রাশিয়াকে টপকে চতুর্থ স্থানে উঠে এসেছে ইমান্যুয়েল ম্যাক্রোর ফ্রান্স। ইউরোপের এ দেশটিতে এখন পর্যন্ত করোনায় সংক্রমিত হয়েছেন ৪৯ লাখ ৩৯ হাজার ২৫৮ জন। এর মধ্যে মৃত্যু হয়েছে ৯৮ হাজার ৬৫ জনের।

আর সংক্রমণে পিছিয়ে পড়ে পঞ্চম স্থানে জায়গা পেলেও মৃত্যুতে ঠিকই ফ্রান্সের ওপরে পুতিনের রাশিয়া। দেশটিতে এখন পর্যন্ত ৪৬ লাখ ১৪ হাজার ৮৩৪ জন আক্রান্ত হলেও মৃত্যুর সংখ্যা লাখ ছাড়িয়েছে, ১ লাখ ১ হাজার ৮৪৫ জন। এছাড়া আক্রান্তের তালিকায় যুক্তরাজ্য ষষ্ঠ ও ইতালি সপ্তম স্থানে থাকলেও স্পেনকে টপকে অষ্টম স্থানে জায়গা করে নিয়েছে এরদোগানের তুরস্ক। যাতে নবম স্থানে নেমে গেছে স্পেন এবং জার্মানি আছে দশম স্থানে। এ ছাড়া আক্রান্ত বেড়ে বাংলাদেশের অবস্থান একধাপ কমে ৩৩তম স্থানে।

২০১৯ সালের ডিসেম্বরের শেষ দিকে চীনের হুবেই প্রদেশের উহান থেকে বিশ্বে ছড়িয়ে পড়ে এই মহামারী করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ। প্রাণঘাতী এই ভাইরাসে এখন পর্যন্ত আক্রান্ত হয়েছে বাংলাদেশসহ বিশ্বের ২১৮টি দেশ ও অঞ্চল।

প্রিন্স ফিলিপ আর নেই
                                  

অনলাইন ডেস্ক :

ইংল্যান্ডের রাণী দ্বিতীয় এলিজাবেথের স্বামী প্রিন্স ফিলিপ মারা গেছেন। বাকিংহাম প্যালেসের বরাত দিয়ে এই তথ্য নিশ্চিত করেছে বিবিসি নিউজ। মৃত্যুকালে তার বয়স হয়েছিল ৯৯ বছর। প্রিন্স ফিলিপ ১৯৪৭ সালে প্রিন্সেস এলিজাবেথকে বিবাহ করেন। এর কয়েক বছর পর তিনি ইংল্যান্ডের রাণী হন। এই দম্পতির চার সন্তান, আটজন নাতি-নাতনী এবং ১০ জন প্রো-পৌত্র রয়েছে।

গত ১৭ ফেব্রুয়ারি অসুস্থ বোধ করায় ‘সতর্কতামূলক ব্যবস্থা হিসেবে’ ‘ডিউক অব এডেনবার্গ’ প্রিন্স ফিলিপকে হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছিল।

ব্রিটিশ রাজপ্রাসাদ বাকিংহাম প্যালেস এক বিবৃতিতে জানিয়েছিল, অসুস্থ হওয়ার পর সতকর্তামূলক ব্যবস্থা হিসেবে ব্যক্তিগত চিকিৎসকের পরামর্শে প্রিন্স ফিলিপকে হাসপাতালে নেওয়া হয়। কয়েকদিন ধরে প্রিন্স ফিলিপ অসুস্থ হন। তবে তার অসুস্থতা করোনাভাইরাস সংক্রান্ত ছিল না বলেও ওই বিবৃতিতে জানানো হয়েছিল।

ব্রিটেনে নতুন প্রজাতির করোনাভাইরাসটি নিয়ন্ত্রণের বাইরে: ব্রিটিশ স্বাস্থ্যমন্ত্রী
                                  

অনলাইন ডেস্ক :

ব্রিটিশ স্বাস্থ্যমন্ত্রী ম্যাট হ্যানকক আশঙ্কা প্রকাশ করে বলেছেন, দেশে ছড়িয়ে পড়া নতুন প্রজাতির করোনাভাইরাস নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে গেছে। ব্রিটেনের দক্ষিণ-পূর্বাঞ্চলে দ্রুত গতিতে ছড়িয়ে পড়া এই প্রজাতির ব্যাপারে তিনি জনগণকে সতর্ক করে দিয়ে বলেছেন, তারা যেন সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার মতো বিধিগুলো কঠোরভাবে মনে চলে।

প্রজাতির করোনাভাইরাসটি নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে যাচ্ছিল বলে তাকে নিয়ন্ত্রণ করা জরুরি হয়ে পড়েছে। স্কাই নিউজকে তিনি বলেন, পরিস্থিতি মারাত্মক। ভ্যাকসিন বিতরণ শুরু না করলে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রাখা খুবই কঠিন হবে।

বিশ্বের প্রথম দেশ হিসেবে ব্রিটেন গত সপ্তাহ থেকে সেদেশের নাগরিকদের করোনাভাইরাসে টিকা দেয়া শুরু করার পর নতুন প্রজাতির করোনাভাইরাসের খবর পাওয়া গেল। তবে টিকা দেয়ার সঙ্গে নতুন প্রজাতির আবির্ভাবের কোনো সম্পর্ক আছে কিনা তা এখনো জানা যায়নি।

এর আগে নতুন সব বিধিনিষেধের কথা জানিয়ে শনিবার ব্রিটিশ প্রধানমন্ত্রী বরিস জনসন বলেছিলেন, নতুন প্রজাতিটি যে খুব বেশি প্রাণনাশী বা ভ্যাকসিনের সঙ্গে ভিন্নভাবে প্রতিক্রিয়া দেখাবে তার কোনো প্রমাণ পাওয়া যায়নি। তবে এটা আরো ৭০ শতাংশ বেশি সংক্রামক।

এদিকে ব্রিটেনে করোনাভাইরাসের নতুন প্রজাতি দেখা দেয়ার পর তার বিস্তার ঠেকাতে কয়েকটি ইউরোপীয় দেশ ব্রিটেনে ফ্লাইট নিষিদ্ধ করেছে। এরই মধ্যে দেশটি থেকে ফ্লাইট বাতিল করেছে বেলজিয়াম ও নেদারল্যান্ডস। বেলজিয়ামগামী ট্রেনও নিষিদ্ধ করা হয়েছে। একই ধরনের পদক্ষেপের কথা ভাবছে জার্মানি এবং ফ্রান্সও।

নতুন প্রজাতির এই করোনাভাইরাসটি মূল করোনাভাইরাসের চেয়ে আরও দ্রুত ছড়াচ্ছে। নতুন প্রজাতি নিয়ে ব্রিটেনের সঙ্গে ঘনিষ্ঠ যোগাযোগ বজায় রাখা হচ্ছে বলে জানিয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা। একই প্রজাতির ভাইরাস পাওয়া গেছে নেদারল্যান্ডস, ডেনমার্ক ও অস্ট্রেলিয়াতেও।

গত বছরের ডিসেম্বরে চীনের উহান শহর থেকে করোনাভাইরাস ছড়িয়ে পড়ে বলে ব্যাপকভাবে মনে করা হয়। তবে চীন সম্প্রতি এই তথ্য অস্বীকার করার চেষ্টা চালিয়েছে।

ভোট গণনা বন্ধে ট্রাম্পের মামলা
                                  

অনলাইন ডেস্ক :

গুরুত্বপূর্ণ কয়েকটি রাজ্যে ভোট গণনা বন্ধে মামলা দায়ের করেছে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের প্রচারণা শিবির। এই রাজ্যগুলো হলো- উইসকিনসন, পেনসিলভানিয়া ও মিশিগান। এর আগে এক টুইট বার্তা ও নির্বাচনী ভাষণে ভোট কারচুপির অভিযোগ তুলেছিলেন ট্রাম্প।

ভোট কারচুপির অভিযোগ তুলে এসব রাজ্যে গণনা বন্ধের প্রতিজ্ঞা করেছিলেন ট্রাম্প। যদিও নিজের দাবির স্বপক্ষে কোনও প্রমাণ তুলে ধরতে পারেননি তিনি।

মার্কিন প্রেসিডেন্ট নির্বাচিত হতে হলে এই চারটি দোদুল্যমান রাজ্যে জয় পাওয়া খুব জরুরি। জর্জিয়া ও মিশিগানে বেশ এগিয়ে রয়েছেন জো বাইডেন। পেনসিলভানিয়া ও উইসকিনসনেও বাইডেনের অবস্থা মোটামুটি ভালো।

পেনসিলভানিয়ায় আরও বহু ভোট গণনা বাকি আছে। নির্বাচনের তিনদিন পর পর্যন্ত সেখানে ব্যালট পৌঁছাবে। ট্রাম্প শিবির ওই ভোটগুলোই গণনা বন্ধে দাবি জানাচ্ছে। এদিকে মঙ্গলবার প্রেসিডেন্ট নির্বাচনী শিবির যে ‘অসামঞ্জস্যতা’ দেখেছে তার ভিত্তিতে সেখানে ভোট গণনা বন্ধের দাবি জানাচ্ছেন ট্রাম্প।

এদিকে পেনসিলভানিয়ার ফিলাডেলফিয়া কনভেনশন সেন্টারের বাইরে ট্রাম্প বিরোধীরা জড়ো হয়ে বিক্ষোভ প্রদর্শন করেছে। বিক্ষোভ সমাবেশে প্রত্যেকটি ভোট গোনার স্বপক্ষে স্লোগান দেয়া সমর্থকদের অনেকে ট্রাম্প পুনঃর্নর্বিাচিত হওয়ার নেতিবাচক দিক সম্পর্কে বক্তব্য রাখেন।

হোয়াইট হাউসের পথে বাইডেন
                                  

অনলাইন ডেস্ক :

ক্ষণে ক্ষণেই পাল্টে যাচ্ছে যুক্তরাষ্ট্রের নির্বাচনের চিত্র। যদিও বেশিরভাগ ইলেকটোরাল কলেজ ভোটের ফলাফল হাতে এসেছে। এতে দেখা যাচ্ছে এখন পর্যন্ত ডেমোক্র্যাট দলের প্রেসিডেন্ট প্রার্থী জো বাইডেন পেয়েছেন ২৬৪টি ইলেকটোরাল ভোট। অপরদিকে রিপাবলিকান প্রার্থী ডোনাল্ড ট্রাম্পের হাতে আছে ২১৪টি ভোট। এক কথায় জয়ের খুব কাছে বাইডেন। চমক দেখিয়ে তিনি পা রাখতে যাচ্ছেন হোয়াইট হাউসে।

উইসকনসিনের পর মিশিগানেও জয় পেয়ে জো বাইডেন এগিয়ে গেছেন অনেক দূরে। এই অঙ্গরাজ্যের ১৬টি ইলেকটোরাল কলেজ ভোট পাচ্ছেন তিনি। ২০১৬ সালের নির্বাচনে এই অঙ্গরাজ্যে জয় পেয়েছিলেন বর্তমান প্রেসিডেন্ট ও রিপাবলিকান প্রার্থী ডোনাল্ড ট্রাম্প।

সিএনএন ও এএফপির খবরে বলা হয়েছে, মিশিগানে হাড্ডাহাড্ডি লড়াইয়ে জয় পেয়েছেন বাইডেন। এই জয়ের ফলে সব মিলিয়ে বাইডেনের ইলেকটোরাল কলেজ ভোটের সংখ্যা দাঁড়াল ২৬৪। আর ট্রাম্প এখন পর্যন্ত পেয়েছেন ২১৪ ভোট। মোট ৫৩৮ ইলেকটোরাল ভোটের মধ্যে প্রেসিডেন্ট হতে প্রয়োজন ২৭০ ভোট। এর মানে যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট হতে বাইডেনের প্রয়োজন আর মাত্র ছয়টি ইলেকটোরাল কলেজ ভোট।

শান্তিতে নোবেল পেল বিশ্ব খাদ্য কর্মসূচি
                                  

অনলাইন ডেস্ক :

এ বছর শান্তিতে নোবেল পুরস্কার পেয়েছে বিশ্ব খাদ্য কর্মসূচি (ডব্লিউএফপি)। শুক্রবার নরওয়েজিয়ান নোবেল কমিটি এমন তথ্য দিয়েছে। খবর সিএনএনের

জাতিসংঘের সহায়তা সংক্রান্ত একটি শাখা বিশ্ব খাদ্য কর্মসূচি। এটি ক্ষুধা ও খাদ্য নিরাপত্তার সঙ্গে জড়িত বিশ্বের বৃহত্তম সংস্থা।

বিশ্ব খাদ্য কর্মসূচির নিজস্ব তথ্যমতে, সংস্থাটি প্রতি বছর ৭৫টি দেশে আট কোটি লোককে খাদ্য সহায়তা দান করে।

সংস্থাটির সদর দফতর রোমে অবস্থিত। সারা বিশ্বে এর ৮০টিরও বেশি শাখা আছে।

এগুলোর মাধ্যমে বিশ্ব খাদ্য কর্মসূচি এমন সব মানুষকে সাহায্য করে, যারা নিজেদের জন্য এবং পরিবারের জন্য যথেষ্ট পরিমাণ খাবার উৎপাদন কিংবা আহরণ করতে অক্ষম।

সংস্থাটি জাতিসংঘ উন্নয়ন গ্রুপের নির্বাহী কমিটির সদস্য।

কুয়েতের আমির শেখ সাবাহ আর নেই
                                  

অনলাইন ডেস্ক :

কুয়েতের আমির শেখ সাবাহ আল আহমাদ আল জাবের আল সাবাহ আর নেই। ইন্নালিল্লাহি ওয়াইন্নইলাহি রাজিউন। মঙ্গলবার (সেপ্টেম্বর) যুক্তরাষ্ট্রের একটি হাসপাতালে তিনি মৃত্যুবরণ করেন বলে আলজাজিরা জানিয়েছে।

দীর্ঘ দিন ধরে অসুস্থ হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন তিনি। কয়েকমাস আগে অসুস্থতা নিয়ে হাসপাতালে ভর্তি হওয়ার পর তারই বৈমাত্রেয় ভাই ও দেশটির ক্রাউন প্রিন্স শেখ নাওয়াফ আল-আহমেদ আল-সাবাহ সাময়িকভাবে রাষ্ট্রীয় দায়িত্ব পালন করে আসছিলেন।

৯১ বছর বয়সী আমির শেখ সাবাহ ২০০৬ সাল থেকে কুয়েতের আমির হিসেবে দায়িত্ব পালন করে আসছেন। ২০১৯ সালের সেপ্টেম্বর মাসে যুক্তরাষ্ট্র সফরের সময় সেখানকার একটি হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন তিনি।

অনেক দিন ধরে নানা ধরনের শারীরিক জটিলতায় ভুগছিলেন আমির শেখ সাবাহ। ২০০২ সালে তার অ্যাপেন্ডিক্স অপসারণ করা হয়। এর দুই বছর পর তার হার্টে একটি পেস মেকার প্রতিস্থাপন করা হয়। ২০০৭ সালে যুক্তরাষ্ট্রের একটি হাসপাতালে মূত্রনালিতে অস্ত্রোপচার করা হয়।

আরব উপসাগরে দুই চির শত্রু যুক্তরাষ্ট্র ও ইরানের মধ্যে টানা পোড়েন চরমে পৌঁছালে উভয় পক্ষকে শান্ত হওয়ার আহ্বান জানিয়েছিলেন কুয়েতের আমির। বর্তমান আধুনিক কুয়েতের স্থপতি হিসেবে ভাবা হয় শেখ সাবাহকে।

বিশ্বে করোনা রোগীর সংখ্যা ৩ কোটি ছাড়িয়েছে: এএফপি
                                  

অনলাইন ডেস্ক :

সারা বিশ্বে নভেল করোনাভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা বৃহস্পতিবার ৩ কোটি ছাড়িয়েছে। বিশ্বের বিভিন্ন দেশের সরকারি সূত্রের ভিত্তিতে এএফপি’র সর্বশেষ পরিসংখ্যানে এ তথ্য জানানো হয়।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা ইউরোপজুড়ে করোনাভাইরাস সংক্রমণের উদ্বেগজনক হারের ব্যাপারে সতর্ক করার পর এ ভাইরাসে আক্রান্তের ৩ কোটির ভয়ানক মাইলফলক অতিক্রম করল।

বিশ্বের বিভিন্ন দেশের কর্তৃপক্ষের এবং বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার দেয়া উপাত্ত থেকে তৈরি করে এ পরিসংখ্যান আক্রান্তের প্রকৃত সংখ্যার কেবল একটি আংশিক প্রতিফলন। কেননা, বিশ্বের অনেক দেশ কেবল করোনার উপসর্গ রয়েছে এমন মানুষের বা একেবারে গুরুতর আক্রান্ত লোকের এ ভাইরাস পরীক্ষা করছে।

গ্রীনিচ মান সময় ১৯:৪৫টায় করা এএফপি’র সর্বশেষ পরিসংখ্যান অনুযায়ী, গত বছরের শেষের দিকে চীনে করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাব দেখা দেয়ার পর থেকে এ পর্যন্ত কোভিড-১৯-এ আক্রান্তের সংখ্যা বেড়ে মোট ৩ কোটি ৬২ জনে এবং মৃতের সংখ্যা বেড়ে মোট ৯ লাখ ৪৩ হাজার ৮৬ জনে দাঁড়িয়েছে।

এদিকে করোনাভাইরাসে সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত দেশ যুক্তরাষ্ট্রে ৬৬ লাখ ৫০ হাজার ৫৭০ আক্রান্ত এবং ১ লাখ ৯৭ হাজার ৩৬৪ জনের মৃত্যু হয়েছে। এরপরের অবস্থানে থাকা ভারতে করোনাভাইরাসে ৫১ লাখ ১৮ হাজার ২৫৩ জন আক্রান্ত এবং ৮৩ হাজার ১৯৮ জনের মৃত্যু হয়েছে। ব্রাজিলে করোনায় ৪৪ লাখ ১৯ হাজার ৮৩ জন আক্রান্ত এবং ১ লাখ ৩৪ হাজার ১০৬ জনের মৃত্যু হয়েছে।

ফের করোনার ভয়াবহতার খবর দিলেন ডব্লিউএইচও
                                  

অনলাইন ডেস্ক :

ইউরোপের দেশগুলোতে আবারও ভয়াবহ আকার ধারণ করতে যাচ্ছে প্রাণঘাতী করোনা। এ বিষয়ে সতর্ক করে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (ডব্লিউএইচও) জানিয়েছে, আগামী অক্টোবর এবং নভেম্বরে ইউরোপে আশঙ্কাজনকহারে করোনার সংক্রমণ এবং মৃত্যুর সংখ্যা বৃদ্ধি পাবে। এটিকে ওই অঞ্চলে মহামারির দ্বিতীয় ঢেউয়ের আগাম সংকেত উল্লেখ করে কড়া সতর্কবার্তা দিয়েছে সংস্থাটি।

 

চীনের উহান থেকে ছড়িয়ে পড়া করোনা সংক্রমণ শুরুর পর এর দ্বিতীয় হটস্পট হয়ে উঠেছিল ইউরোপ। সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে আসায় মাস দুয়েক আগে অঞ্চলটির বেশিরভাগ দেশই লকডাউন তুলে অর্থনৈতিক কার্যক্রম শুরু করেছে। তবে গত কয়েক সপ্তাহে করোনা সংক্রমণের সংখ্যা তীব্র আকার ধারণ করছে; বিশেষ করে স্পেন এবং ফ্রান্সে।

বৃহস্পতিবার এক সংবাদ সম্মেলনে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার আঞ্চলিক পরিচালক হ্যান্স ক্লুজ বলেছেন, অঞ্চলটিতে নতুন আক্রান্তের সংখ্যা বাড়তে থাকা আসন্ন ভয়াবহতার সংকেত দিচ্ছে।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার এ কর্মকর্তা বলেন, ইউরোপের অর্ধেকের বেশি দেশেই গত দুই সপ্তাহে ১০ শতাংশ নতুন রোগী বৃদ্ধি পেয়েছে। এর মধ্যে সাতটি দেশে নতুন সংক্রমণ বেড়েছে দ্বিগুণেরও বেশি।

হান্স ক্লুজ সতর্ক করে বলেন, তরুণদের মধ্যে করোনার সংক্রমণ বাড়ার প্রবণতা বয়স্ক ব্যক্তিদেরও ঝুঁকিতে ফেলছে। এ পরিস্থিতিতে বেশ কিছু ইউরোপীয় দেশ তাদের সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত অঞ্চলে নতুন করে স্থানীয় পর্যায়ে লকডাউন জারি করেছে।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার ইউরোপীয় অঞ্চলের ৫৫টি দেশের ওপর এক সমীক্ষায় দেখা গেছে, গত এপ্রিলের তুলনায় বর্তমানে করোনার বৃদ্ধির হার আশঙ্কাজনক হারে বৃদ্ধি পেয়েছে। এতে আগামী অক্টোবর এবং নভেম্বরে ইউরোপে আশঙ্কাজনকহারে করোনার সংক্রমণ এবং মৃত্যুর সংখ্যা বৃদ্ধির আশঙ্কা করছেন হান্স ক্লুজ।

তিনি বলেন, জুনে সংক্রমণ ছিল যেকোনও সময়ের চেয়ে কম। কিন্তু সেপ্টেম্বরে সংক্রমণের সংখ্যা দেখে আমাদের সবার সচেতন হওয়া উচিত।

বিশ্বে করোনাক্রান্ত ২ কোটি ১৪ লাখ ছাড়াল
                                  

অনলাইন ডেস্ক :

বিশ্বে করোনা ভাইরাসে আক্রান্তের সংখ্যা ২ কোটি ১৪ লাখ ছাড়িয়েছে। করোনা শনাক্তের তথ্যপ্রকাশকারী ওয়েবসাইট ওয়ার্ল্ডোমিটারে এ খবর জানানো হয়। মহামারি শুরুর মাত্র সাড়ে সাত মাসের মাথায় এ সংখ্যায় পৌঁছে বিশ্বের করোনা শনাক্ত।

ওয়ার্ল্ডোমিটারের তথ্যমতে, বিশ্বে এ পর্যন্ত কোভিড-১৯ আক্রান্ত হয়েছেন ২ কোটি ১৪ লাখ ৪৮ হাজার ৫৭৯ জন। এদের মধ্যে সুস্থ হয়ে উঠেছেন অন্তত ১ কোটি ৪২ লাখ ২৪ হাজার ৪৪১ জন। বিশ্বের অন্তত ২১৩টি দেশ ও অঞ্চলে ছড়িয়েছে কোভিড-১৯ মহামারি। এতে প্রাণ হারিয়েছেন অন্তত ৭ লাখ ৬৫ হাজার ১৮০ জন।

এ পর্যন্ত সবচেয়ে বেশি করোনায় আক্রান্ত হয়েছে যুক্তরাষ্ট্র। দেশটিতে এরই মধ্যে ৫৪ লাখের বেশি মানুষ করোনা পজিটিভ শনাক্ত হয়েছেন। মৃত্যুর হিসাবেও বিশ্বের অন্যান্য দেশের তুলনায় বহুগুণ এগিয়ে যুক্তরাষ্ট্র। সেখানে অন্তত ১ লাখ ৭১ হাজার ৮৬৭ জন প্রাণঘাতী এ ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে মারা গেছেন।

আক্রান্তের দিক থেকে যুক্তরাষ্ট্রের পরেই রয়েছে ব্রাজিল, ভারত, রাশিয়া, দক্ষিণ আফ্রিকা, পেরু, মেক্সিকো, কলম্বিয়া, চিলি ও স্পেন। ব্রাজিলে এ পর্যন্ত করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন প্রায় ৩৩ লাখ মানুষ, ভারতে ২৫ লাখ, রাশিয়ায় ৯ লাখ ও দক্ষিণ আফ্রিকায় অন্তত ৫ লাখ ৭৯ হাজার মানুষ।

বছর শেষেই আসছে করোনা ভ্যাকসিন : চীন
                                  

অনলািইন ডেস্ক :

চলতি বছরের শেষের দিকে চীনের ন্যাশনাল ফার্মাসিউটিক্যাল গ্রুপ সিনোফার্মের তৈরি করোনাভাইরাসের একটি ভ্যাকসিন জনসাধারণের ব্যবহারের জন্য প্রস্তুত হতে পারে।

গতকাল বুধবার দেশটির সরকারি সংবাদমাধ্যমে এই তথ্য জানানো হয় বলে রয়টার্সের এক প্রতিবেদনে বলা হয়েছে। যদিও এর আগে ভ্যাকসিনটি ২০২১ সালে সহজলভ্য হতে পারে বলে প্রত্যাশার কথা জানিয়েছিল সিনোফার্ম।

সিনোফার্মের চেয়ারম্যান লিউ জিংঝেন রাষ্ট্রীয় সম্প্রচারমাদ্যম সিসিটিভিকে বলেছেন, আগামী তিন মাসের মধ্যে তাদের তৈরি করোনার ভ্যাকসিন মানবদেহে শেষ ধাপের পরীক্ষা সম্পন্ন হবে বলে প্রত্যাশা করা হচ্ছে।

সিনোফার্মের সহযোগী প্রতিষ্ঠান চায়না ন্যাশনাল বায়োটেক গ্রুপ (সিএনবিজি) করোনাভাইরাসের দুটি ভ্যাকসিনের প্রকল্প পরিচালনা করছে। চীনে করোনাভাইরাসের সংক্রমণ হ্রাস পাওয়ায় পরীক্ষা চালানোর জন্য পর্যাপ্তসংখ্যক রোগী মিলছে না; যে কারণে ২০২১ সালের আগে ভ্যাকসিনটি পুরোপুরি ব্যবহারের জন্য প্রস্তুত করা সম্ভব না-ও হতে পারে বলে গত জুনে জানিয়েছিল সিএনবিজি।

তবে তখন থেকে ভ্যাকসিনের পরীক্ষা চালানোর জন্য দেশের বাইরে বিকল্প জায়গা খুঁজতে থাকে চীন। সব ধরনের প্রতিবন্ধকতা পেরিয়ে ইতিমধ্যে সংযুক্ত আরব আমিরাতসহ আরও কয়েকটি দেশে ভ্যাকসিনটির পরীক্ষা চালানোর প্রক্রিয়া শুরু করেছে বেইজিং।

সিনোফার্মের তৈরি ভ্যাকসিনটি তৃতীয় ধাপের পরীক্ষায় প্রবেশ করেছে; শেষ এই ধাপে ১৫ হাজার মানুষের শরীরে তা প্রয়োগ করা হবে। চীনের দুটি ভ্যাকসিনের পরীক্ষামূলক প্রয়োগ হবে সংযুক্ত আরব আমিরাতে। চীনের রাষ্ট্র-নিয়ন্ত্রিত অপর কোম্পানি সিনোভ্যাক বায়োটেকের আরেকটি সম্ভাব্য ভ্যাকসিনের শেষ ধাপের পরীক্ষা ব্রাজিলে শুরু হয়েছে।

এ ছাড়া দেশটির সামরিক বাহিনীর গবেষণা শাখা ও ক্যানসিনো বায়োলজিকসের তৈরি আরেকটি ভ্যাকসিন ইতিমধ্যে মাঝ-পর্যায়ের পরীক্ষায় পৌঁছেছে। ভ্যাকসিনটি সামরিক বাহিনীর সদস্যদের দেহে প্রয়োগে নিরাপদ এবং রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়াতে সক্ষম হয়েছে বলে জানিয়েছে ক্যানসিনো। এই ভ্যাকসিনটিও চীনের বাইরে শেষ ধাপের পরীক্ষা চালানোর সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

প্রসঙ্গত, গত বছরের ডিসেম্বরে চীনের উহানে করোনাভাইরাসের উৎপত্তি হওয়ার পর তা বিশ্বের প্রায় সব দেশে ছড়িয়েছে। এই ভাইরাসে বিশ্বজুড়ে আক্রান্তের সংখ্যা দেড় কোটি ছাড়িয়েছে, প্রাণ গেছে ৬ লাখ ৩০ হাজারের বেশি। চীন নিয়ন্ত্রণে আনতে সক্ষম হলেও বিশ্বের বিভিন্ন অঞ্চলে এখনো লাগামহীন অবস্থায় রয়েছে করোনা।

করোনা প্রতিরোধে সক্ষম অক্সফোর্ড ভ্যাকসিন
                                  

অনলাইন ডেস্ক :

বিশ্বব্যাপী ভয়ঙ্করভাবে ছড়িয়ে পড়া করোনা মহামারি প্রতিরোধে দেশে দেশে ভ্যাকসিন তৈরির জোর প্রচেষ্টা চলছে। এর মধ্যে করোনারভাইরাসের বিরুদ্ধে অক্সফোর্ড ইউনিভার্সিটির উদ্ভাবিত ভ্যাকসিনটি নিরাপদ ও রোগ-প্রতিরোধ ক্ষমতা গড়ে তুলতে সক্ষম।

ভ্যাকসিনটির প্রথম ধাপের ক্লিনিক্যাল ট্রায়ালের ফলাফল প্রতিবেদনে এই তথ্য তুলে ধরা হয়েছে। সোমবার (২০ জুলাই) আন্তর্জাতিক মেডিক্যাল জার্নাল ল্যানসেটে প্রতিবেদনটি প্রকাশিত হয়েছে।

দ্য ল্যানসেট জানিয়েছে, দশজন অংশগ্রহণকারীর একটি সাব-গ্রুপ গবেষণায় প্রাপ্ত তথ্য অনুসারে, ক্লিনিক্যাল ট্রায়ালের প্রথম ও দ্বিতীয় ধাপে ১ হাজার ৭৭ জনের দেহে অক্সফোর্ডের ভ্যাকসিন ক্যান্ডিডেট প্রয়োগ করা হয়।

ফলাফলে দেখা গেছে, পরীক্ষার ৫৬ দিন পর্যন্ত শক্তিশালী অ্যান্টিবডি উৎপাদন ও টি-সেল রোগ-প্রতিরোধ ক্ষমতা গড়ে তুলেছে। দ্বিতীয় ডোজ দেয়ার পর এই ফল আরও বেশি হতে পারে।

প্রসঙ্গত, বিশ্বের দুই শতাধিক ভ্যাকসিন উদ্ভাবন প্রচেষ্টার মধ্যে যে ১৪টি মানুষের শরীরে ট্রায়াল করা হয়েছে তাদের মধ্যে এগিয়ে রয়েছে ব্রিটেনের অক্সফোর্ড ও যুক্তরাষ্ট্রের মর্ডার্না। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থাও বলছে, ভ্যাকসিন তৈরিতে অক্সফোর্ডই সব থেকে এগিয়ে রয়েছে।


   Page 1 of 30
     আন্তর্জাতিক
ব্ল্যাক-হোয়াইটের পর এবার ভারতে ইয়েলো ফাঙ্গাসের সংক্রমণ
.............................................................................................
ইসরাইলের তেল আবিবের কেন্দ্রস্থলে হামাসের রকেট হামলা
.............................................................................................
ভারতে একদিনে করোনায় মারা গেছে ৪ হাজার ১২০ জন
.............................................................................................
ভারতে করোনা মোকাবেলায় মাঠে নেমেছে সেনাবাহিনী
.............................................................................................
করোনায় বিশ্বে মৃত্যু আরও ১৪ হাজার
.............................................................................................
প্রিন্স ফিলিপ আর নেই
.............................................................................................
ব্রিটেনে নতুন প্রজাতির করোনাভাইরাসটি নিয়ন্ত্রণের বাইরে: ব্রিটিশ স্বাস্থ্যমন্ত্রী
.............................................................................................
ভোট গণনা বন্ধে ট্রাম্পের মামলা
.............................................................................................
হোয়াইট হাউসের পথে বাইডেন
.............................................................................................
শান্তিতে নোবেল পেল বিশ্ব খাদ্য কর্মসূচি
.............................................................................................
কুয়েতের আমির শেখ সাবাহ আর নেই
.............................................................................................
বিশ্বে করোনা রোগীর সংখ্যা ৩ কোটি ছাড়িয়েছে: এএফপি
.............................................................................................
ফের করোনার ভয়াবহতার খবর দিলেন ডব্লিউএইচও
.............................................................................................
বিশ্বে করোনাক্রান্ত ২ কোটি ১৪ লাখ ছাড়াল
.............................................................................................
বছর শেষেই আসছে করোনা ভ্যাকসিন : চীন
.............................................................................................
করোনা প্রতিরোধে সক্ষম অক্সফোর্ড ভ্যাকসিন
.............................................................................................
করোনায় আক্রান্ত ১ কোটি ১৭ লাখ, মৃত্যু ৫ লাখ ৪০ হাজার
.............................................................................................
বিশ্বে করোনায় মোট ৫ লাখ ৩০ হাজার মৃত্যু
.............................................................................................
সামনে আরও ভয়ঙ্কর দিন আসছে: ডব্লিউএইচও
.............................................................................................
এবার চীনে নতুন ফ্লু ভাইরাস, মহামারীর আশঙ্কা
.............................................................................................
এবার মুরগী ছড়াচ্ছে ‘সালমোনেলা’ আতঙ্ক, আক্রান্ত ৪৬৫!
.............................................................................................
চীনের ভ্যাকসিন সবার আগে বাংলাদেশে আসবে
.............................................................................................
বাতিল হলো না হজ, অনুষ্ঠিত হবে সীমিত মুসল্লি নিয়ে
.............................................................................................
গোটা বিশ্ব এখন একটি বিপজ্জনক পর্যায়ে: ডব্লিউএইচও
.............................................................................................
যুক্তরাষ্ট্রে মৃত্যু লাখ ছাড়ালো
.............................................................................................
করোনা ভাইরাস: উহানে ৯ দিনে ৬৫ লাখ নমুনা পরীক্ষা
.............................................................................................
লকডাউন শিথিল করায় সংক্রমণ আবারও বাড়তে পারে, হুঁশিয়ারি ডব্লিউএইচও’র
.............................................................................................
বাংলাদেশসহ ১১ দেশ থেকে জাপান ভ্রমণে নিষেধাজ্ঞা
.............................................................................................
শতাধিক আরোহী নিয়ে পাকিস্তানে বিমান বিধ্বস্ত
.............................................................................................
চাঁদ দেখা যায়নি, সৌদিতে ঈদুল ফিতর রোববার
.............................................................................................
করোনায় আক্রান্ত প্রায় ৫১ লাখ, মৃত্যু বেড়ে সাড়ে ৩ লাখ
.............................................................................................
পশ্চিমবঙ্গে ঘূর্ণিঝড় আম্পানে ৭২ জনের মৃত্যু
.............................................................................................
পাকিস্তানের অভ্যন্তরীণ রুটে উড়োজাহাজ চলাচল শুরু
.............................................................................................
লকডাউন শিথিলের পর ইউরোপে খুলছে সমুদ্র সৈকত
.............................................................................................
ভারতে বাড়ছে লকডাউনের মেয়াদ
.............................................................................................
বিশ্বে করোনায় মৃতের সংখ্যা ২ লাখ ৯৪ হাজারের বেশি
.............................................................................................
বিশ্বে করোনায় মৃত ২ লাখ ৮৫ হাজার
.............................................................................................
মালয়েশিয়া পঞ্চমবারের মতো বাড়ল লকডাউনের মেয়াদ
.............................................................................................
বিশ্বে করোনায় মৃত ২ লাখ ৭৩ হাজার
.............................................................................................
করোনার সফল টিকা তৈরি করল ইতালি!
.............................................................................................
শর্ত দিয়ে গণপরিবহন চালু করছে ভারত
.............................................................................................
টাস্কফোর্স বন্ধ করে লকডাউন তুলে নিতে চাইছেন ট্রাম্প
.............................................................................................
বিশ্বে করোনায় মৃত ২ লাখ ৫৫ হাজারের বেশি
.............................................................................................
করোনার সম্ভাব্য ১৪টি ভ্যাকসিন শনাক্ত করেছে যুক্তরাষ্ট্র
.............................................................................................
গাছের ফল ও ছাগলের করোনা টেস্টের রিপোর্টও পজিটিভ!
.............................................................................................
বরিসের মৃত্যু ঘোষণার প্রস্তুতি ছিল চিকিৎসকদের
.............................................................................................
বিশ্বে করোনা মৃতের সংখ্যা দুই লাখ ৪৪ হাজারের ও বেশি
.............................................................................................
১৭ মে পর্যন্ত লকডাউনের মেয়াদ বাড়লো ভারতে
.............................................................................................
উহানের ল্যাবরেটরি থেকে কারোনা উৎপত্তির প্রমাণ আছে : ট্রাম্প
.............................................................................................
করোনায় আক্রান্ত রাশিয়ার প্রধানমন্ত্রী
.............................................................................................

|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
সম্পাদক ও প্রকাশক : জিয়াউল হক ।
নির্বাহী সম্পাদক : মো: হাবিবুর রহমান । এম, এ হাসান : সম্পাদক কর্তৃক বিএস প্রিন্টিং প্রেস ৫২/২ টয়েনবি সার্কুলার রোড, সুত্রাপুর ঢাকা খেকে মুদ্রিত
ও ৬০/ই/১ পুরানা পল্টন (৭ম তলা) থেকে প্রকাশিত বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : ৫১,৫১/ এ রিসোর্সফুল পল্টন সিটি (৪র্থ তলা), পুরানা পল্টন, ঢাকা -১০০০।
ফোনঃ-০২-৯৫৫০৮৭২,-মোবাইলঃ- ০১৭১৬-৯১১৫৭২

E-mail: provatikhoborbd@gmail.com,provatikhobor2014@gmail.com,
Web: www.dailyprovatikhobor.com

   All Right Reserved By www.dailyprovatikhobor.com Developed By: Dynamic Solution IT Dynamic Scale BD & BD My Shop