ঢাকা,বুধবার,৪ কার্তিক ১৪২৮,২০,অক্টোবর,২০২১
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
শিরোনাম : * টি‌সি‌বির বিক্রয় শুরু, চলবে ২৮ অক্টোবর পর্যন্ত   * রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসন নিয়ে সৃষ্ট অনিশ্চয়তায় প্রধানমন্ত্রীর উদ্বেগ প্রকাশ   * ডিএমপির ৪ থানার ওসিকে বদলি   * শ্রীলঙ্কাকে হারিয়ে ইতিহাস গড়ল টাইগাররা   * জলবায়ু ঝুঁকির হাত থেকে বাঁচাতে কমনওয়েলথকে অগ্রণী ভূমিকার আহ্বান   * আরও ২৫ জনের মৃত্যু, আক্রান্ত ১,৪৪১ জন   * বাংলাদেশিদের জন্য ইসরাইল ভ্রমণ বন্ধই থাকবে: তথ্যমন্ত্রী   * করোনা টিকার দ্বিতীয় ডোজ নিলেন ওবায়দুল কাদের   * ফিলিস্তিনের যুদ্ধাহতদের জন্য ওষুধ পাঠাবে বিএনপি   * ১৫ শতাংশ সারচার্জ মওকুফ: মেয়র আতিক  

   করোনাভাইরাস -
                                                                                                                                                                                                                                                                                                                                 
আরও ২৫ জনের মৃত্যু, আক্রান্ত ১,৪৪১ জন

অনলাইন ডেস্ক :

দেশে গত ২৪ ঘন্টায় কোভিড-১৯ এ মৃত্যুবরণ করেছেন ২৫ জন। একই সময়ে নতুন করে এ রোগে আক্রান্ত হয়েছেন ১ হাজার ৪৪১ এবং সুস্থ হয়েছেন ৮৩৪ জন। ২৪ ঘন্টায় মৃত্যুবরণকারীদের মধ্যে পুরুষ ২১ ও নারী ৪ জন।

গতকালের চেয়ে আজ ৩ জন কম মৃত্যুবরণ করেছেন। গতকাল ২৮ জন মৃত্যুবরণ করেছিলেন। এখন পর্যন্ত দেশে করোনা মহামারিতে মৃত্যুবরণ করেছেন ১২ হাজার ৪০১ জন। করোনা শনাক্তের বিবেচনায় আজ মৃত্যুর হার ১ দশমিক ৫৭ শতাংশ। গত ২২ মে থেকে মৃত্যুর একই হার বিদ্যমান রয়েছে।

গত ২৪ ঘন্টায় মৃত্যুবরণকারীদের বয়স বিশ্লেষণে দেখা যায়, ২১ থেকে ৩০ বছর বয়সী ১ জন, ৪১ থেকে ৫০ বছর বয়সী ৪ জন, ৫১ থেকে ৬০ বছর বয়সী ৭ জন এবং ষাটোর্ধ ১৩ জন রয়েছেন। মৃত্যুবরণকারীদের মধ্যে ঢাকা ও চট্টগ্রাম বিভাগে ৬ জন করে, রাজশাহী ও রংপুর বিভাগে ৩ জন করে এবং খুলনা বিভাগে ৭ জন রয়েছেন।

স্বাস্থ্য অধিদফতরের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে আজ এসব তথ্য জানানো হয়েছে।

বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, গত ২৪ ঘন্টায় ১৭ হাজার ৬৮৩ জনের নমুনা পরীক্ষায় ১ হাজার ৪৪১ জনের দেহে করোনা শনাক্ত হয়েছে। গতকাল ১৫ হাজার ২০৫ জনের নমুনা পরীক্ষায় ১ হাজার ৩৫৪ জনের দেহে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছিল। দেশে গত ২৪ ঘন্টায় নমুনা পরীক্ষার বিবেচনায় শনাক্তের হার ৮ দশমিক ১৫ শতাংশ। আগের দিন এই হার ছিল ৮ দশমিক ৯০ শতাংশ।

স্বাস্থ্য অধিদফতর জানায়, দেশে এ পর্যন্ত মোট ৫৮ লাখ ৩৮ হাজার ২৯৫ জনের নমুনা পরীক্ষায় ৭ লাখ ৯০ হাজার ৫২১ জনের দেহে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। মোট পরীক্ষার ৪২ লাখ ৬৮ হাজার ৭৩৬টি হয়েছে সরকারি এবং ১৫ লাখ ৬৯ হাজার ৫৫৯টি হয়েছে বেসরকারি ব্যবস্থাপনায়। মোট পরীক্ষার বিবেচনায় শনাক্তের হার ১৩ দশমিক ৫৮ শতাংশ। গতকাল পর্যন্ত শনাক্তের হার ছিল ১৩ দশমিক ৫৬ শতাংশ।

বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, করোনাভাইরাসে আক্রান্তদের মধ্যে গত ২৪ ঘন্টায় হাসপাতাল এবং বাসায় মিলিয়ে সুস্থ হয়েছেন ৮৩৪ জন। গতকাল সুস্থ হয়েছিলেন ৮৯৯ জন। গতকালের চেয়ে আজ ৬৫ জন কম সুস্থ হয়েছেন। দেশে এ পর্যন্ত সুস্থ হয়েছেন ৭ লাখ ৩১ হাজার ৫৩১ জন। আজ শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ৯২ দশমিক ৫৪ শতাংশ। গতকাল সুস্থতার হার ছিল ৯২ দশমিক ৬০ শতাংশ। গতকালের চেয়ে আজ সুস্থতার হার দশমিক ০৬ শতাংশ কম।

বিজ্ঞপ্তিতে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর জানায়, করোনাভাইরাস শনাক্তে গত ২৪ ঘন্টায় নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে ১৮ হাজার ৩৩৫ জনের। আগের দিন নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছিল ১৫ হাজার ১৮২ জনের। গতকালের চেয়ে আজ ৩ হাজার ১৫৩টি নমুনা বেশি সংগ্রহ হয়েছে। গত ২৪ ঘন্টায় দেশের সরকারি ৪০৬টি ও বেসরকারি ৮০টিসহ ৪৮৬টি পরীক্ষাগারে (এন্টিজেন টেস্টসহ) নমুনা পরীক্ষা হয়েছে ১৭ হাজার ৬৮৩ জনের। আগের দিন নমুনা পরীক্ষা হয়েছিল ১৫ হাজার ২০৫ জনের। গতকালের চেয়ে আজ ২ হাজার ৪৭৮টি নমুনা বেশি পরীক্ষা হয়েছে।

আরও ২৫ জনের মৃত্যু, আক্রান্ত ১,৪৪১ জন
                                  

অনলাইন ডেস্ক :

দেশে গত ২৪ ঘন্টায় কোভিড-১৯ এ মৃত্যুবরণ করেছেন ২৫ জন। একই সময়ে নতুন করে এ রোগে আক্রান্ত হয়েছেন ১ হাজার ৪৪১ এবং সুস্থ হয়েছেন ৮৩৪ জন। ২৪ ঘন্টায় মৃত্যুবরণকারীদের মধ্যে পুরুষ ২১ ও নারী ৪ জন।

গতকালের চেয়ে আজ ৩ জন কম মৃত্যুবরণ করেছেন। গতকাল ২৮ জন মৃত্যুবরণ করেছিলেন। এখন পর্যন্ত দেশে করোনা মহামারিতে মৃত্যুবরণ করেছেন ১২ হাজার ৪০১ জন। করোনা শনাক্তের বিবেচনায় আজ মৃত্যুর হার ১ দশমিক ৫৭ শতাংশ। গত ২২ মে থেকে মৃত্যুর একই হার বিদ্যমান রয়েছে।

গত ২৪ ঘন্টায় মৃত্যুবরণকারীদের বয়স বিশ্লেষণে দেখা যায়, ২১ থেকে ৩০ বছর বয়সী ১ জন, ৪১ থেকে ৫০ বছর বয়সী ৪ জন, ৫১ থেকে ৬০ বছর বয়সী ৭ জন এবং ষাটোর্ধ ১৩ জন রয়েছেন। মৃত্যুবরণকারীদের মধ্যে ঢাকা ও চট্টগ্রাম বিভাগে ৬ জন করে, রাজশাহী ও রংপুর বিভাগে ৩ জন করে এবং খুলনা বিভাগে ৭ জন রয়েছেন।

স্বাস্থ্য অধিদফতরের এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে আজ এসব তথ্য জানানো হয়েছে।

বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, গত ২৪ ঘন্টায় ১৭ হাজার ৬৮৩ জনের নমুনা পরীক্ষায় ১ হাজার ৪৪১ জনের দেহে করোনা শনাক্ত হয়েছে। গতকাল ১৫ হাজার ২০৫ জনের নমুনা পরীক্ষায় ১ হাজার ৩৫৪ জনের দেহে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছিল। দেশে গত ২৪ ঘন্টায় নমুনা পরীক্ষার বিবেচনায় শনাক্তের হার ৮ দশমিক ১৫ শতাংশ। আগের দিন এই হার ছিল ৮ দশমিক ৯০ শতাংশ।

স্বাস্থ্য অধিদফতর জানায়, দেশে এ পর্যন্ত মোট ৫৮ লাখ ৩৮ হাজার ২৯৫ জনের নমুনা পরীক্ষায় ৭ লাখ ৯০ হাজার ৫২১ জনের দেহে করোনাভাইরাস শনাক্ত হয়েছে। মোট পরীক্ষার ৪২ লাখ ৬৮ হাজার ৭৩৬টি হয়েছে সরকারি এবং ১৫ লাখ ৬৯ হাজার ৫৫৯টি হয়েছে বেসরকারি ব্যবস্থাপনায়। মোট পরীক্ষার বিবেচনায় শনাক্তের হার ১৩ দশমিক ৫৮ শতাংশ। গতকাল পর্যন্ত শনাক্তের হার ছিল ১৩ দশমিক ৫৬ শতাংশ।

বিজ্ঞপ্তিতে জানানো হয়, করোনাভাইরাসে আক্রান্তদের মধ্যে গত ২৪ ঘন্টায় হাসপাতাল এবং বাসায় মিলিয়ে সুস্থ হয়েছেন ৮৩৪ জন। গতকাল সুস্থ হয়েছিলেন ৮৯৯ জন। গতকালের চেয়ে আজ ৬৫ জন কম সুস্থ হয়েছেন। দেশে এ পর্যন্ত সুস্থ হয়েছেন ৭ লাখ ৩১ হাজার ৫৩১ জন। আজ শনাক্ত বিবেচনায় সুস্থতার হার ৯২ দশমিক ৫৪ শতাংশ। গতকাল সুস্থতার হার ছিল ৯২ দশমিক ৬০ শতাংশ। গতকালের চেয়ে আজ সুস্থতার হার দশমিক ০৬ শতাংশ কম।

বিজ্ঞপ্তিতে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর জানায়, করোনাভাইরাস শনাক্তে গত ২৪ ঘন্টায় নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে ১৮ হাজার ৩৩৫ জনের। আগের দিন নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছিল ১৫ হাজার ১৮২ জনের। গতকালের চেয়ে আজ ৩ হাজার ১৫৩টি নমুনা বেশি সংগ্রহ হয়েছে। গত ২৪ ঘন্টায় দেশের সরকারি ৪০৬টি ও বেসরকারি ৮০টিসহ ৪৮৬টি পরীক্ষাগারে (এন্টিজেন টেস্টসহ) নমুনা পরীক্ষা হয়েছে ১৭ হাজার ৬৮৩ জনের। আগের দিন নমুনা পরীক্ষা হয়েছিল ১৫ হাজার ২০৫ জনের। গতকালের চেয়ে আজ ২ হাজার ৪৭৮টি নমুনা বেশি পরীক্ষা হয়েছে।

করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ৩৭, শনাক্ত ১৬০৮ জন
                                  

অনলাইন ডেস্ক :

দেশে করোনাভাইরাসে আরও ৩৭ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে মৃতের সংখ্যা দাঁড়ালো ১২ হাজার ২৪৮ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় দেশে নতুন করে করোনা শনাক্ত হয়েছেন আরও ১ হাজার ৬০৮ জন। দেশে এখন পর্যন্ত মোট করোনা আক্রান্তের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৭ লাখ ৮৩ হাজার ৭৩৭ জনে।

বুধবার (১৯ মে) বিকেলে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর থেকে এক বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, গত ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছেন ১ হাজার ৯২৩ জন। এ নিয়ে মোট সুস্থ হয়েছেন ৭ লাখ ২৬ হাজার ১৩২ জন। এদিন মোট করোনা পরীক্ষা করা হয়েছে ২০ হাজার ৫২৮ জন।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তর জানিয়েছে, ২৪ ঘণ্টায় ২০ হাজার ৪৯৮ জনের নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে। পরীক্ষা করা হয়েছে ২০ হাজার ৫২৮টি। নমুনা পরীক্ষার তুলনায় শনাক্তের হার ৭ দশমিক ৮৩ শতাংশ। দেশে এ পর্যন্ত মোট নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে ৫৭ লাখ ৫৫ হাজার ৪৪৬টি। মোট পরীক্ষার তুলনায় শনাক্তের হার ১৩ দশমিক ৬২ শতাংশ।

এর আগে মঙ্গলবার (১৮ মে) দেশে করোনায় ৩০ জন মারা যান, আর নতুন করে শনাক্ত হয় এক হাজার ২৭২ জন।

করোনায় ৩২ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ৬৯৮
                                  

অনলাইন ডেস্ক :

দেশে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে আরও ৩২ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে মৃতের সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১২ হাজার ১৮১ জনে। এছাড়া, গত ২৪ ঘণ্টায় নতুন করে ৬৯৮ জন করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। এ নিয়ে দেশে করোনা শনাক্ত হলো মোট ৭ লাখ ৮০ হাজার ৮৫৭ জনের।

সোমবার (১৭ মে) স্বাস্থ্য অধিদপ্তর থেকে পাঠানো এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়।

এতে জানানো হয়, গত ২৪ ঘণ্টায় সুস্থ হয়েছেন ১ হাজার ৫৮ জন। এ পর্যন্ত সুস্থ হয়েছেন ৭ লাখ ২৩ হাজার ৯৪ জন। মারা যাওয়া ৩২ জনের মধ্যে ২৩ জন পুরুষ ও ৯ জন নারী। এরমধ‌্যে সরকারি হাসপাতালে ১৯ জন, বেসরকারি হাসপাতালে ১১ জন ও বাসায় ২ জন মারা গেছেন।

বিভিন্ন বিভাগে যারা মারা গেছেন তাদের মধ্যে ঢাকায় ২১ জন, চট্টগ্রামে ২ জন, রাজশাহীতে ২ জন, খুলনায় ২ জন, বরিশালে ১ জন, সিলেটে ৩ জন ও ময়মনসিংহে ১ জন রয়েছেন।

বয়সভিত্তিক বিশ্লেষণে দেখা যায়, ২১ থেকে ৩০ জনের মধ‌্যে ১ জন, ৩১ থেকে ৪০ বছরের ৩ জন, ৪১ থেকে ৫০ বয়সের মধ্যে ৪ জন, ৫১ থেকে ৬০ বছরের মধ্যে ৭ জন, ৬০ বছরের ওপরে ১৭ জন রয়েছেন।

করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ৩১, শনাক্ত ১২৯০
                                  

অনলাইন ডেস্ক :

দেশে করোনাভাইরাসে আরও ৩১ জনের মৃত্যু হয়েছে। এ নিয়ে মৃতের সংখ্যা দাঁড়ালো ১২ হাজার ৭৬ জন। গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ১ হাজার ২৯০ জন। এ নিয়ে মোট শনাক্তের সংখ্যা দাঁড়াল ৭ লাখ ৭৮ হাজার ৬৮৭ জন।

বৃহস্পতিবার (১৩ মে) স্বাস্থ্য অধিদপ্তর থেকে পাঠানো সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

স্বাস্থ্য অধিদপ্তর জানিয়েছে, ২৪ ঘণ্টায় ১৩ হাজার ৪২৪ জনের নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে। পরীক্ষা করা হয়েছে ১৩ হাজার ৪৭১টি। নমুনা পরীক্ষার তুলনায় শনাক্তের হার ৯ দশমিক ৫৮ শতাংশ। দেশে এ পর্যন্ত মোট নমুনা পরীক্ষা করা হয়েছে ৫৬ লাখ ৯০ হাজার ৬৯৩টি।

মোট পরীক্ষার তুলনায় শনাক্তের হার ১৩ দশমিক ৬৮ শতাংশ। গত ২৪ ঘণ্টায় মারা যাওয়া ৩১ জনের মধ্যে ঢাকা বিভাগেরই ১৩ জন। এছাড়া চট্টগ্রামে ৯, রাজশাহীতে ৩, খুলনায় ১, রংপুরে ১, ময়মনসিংহে ১ জন এবং সিলেটে ৩ জন মারা গেছেন। মারা যাওয়াদের মধ্যে ১৭ জন পুরুষ এবং ১৪ জন নারী। এদের ২ জন বাসায় মারা গেছেন।

এ পর্যন্ত ভাইরাসটিতে মোট মারা যাওয়া ১২ হাজার ৭৬ জনের মধ্যে পুরুষ ৮ হাজার ৭৪৩ জন এবং নারী ৩ হাজার ৩৩৩ জন। 

বুড়িগঙ্গায় লঞ্চডুবি: ১৩ ঘণ্টা পর একজনকে জীবিত উদ্ধার!
                                  

অনলাইন ডেস্ক :

রাজধানীর শ্যামবাজরে বুড়িগঙ্গা নদীতে লঞ্চ ডুবিতে ১৩ ঘণ্টা পর একজনকে জীবিত উদ্ধার করা হয়েছে। রোববার রাতে তাকে জীবিত উদ্ধার করে ডুবুরিরা।

এর আগে সকাল নয়টার দিকে মুন্সিগঞ্জ থেকে ছেড়ে আসা মর্নিং বার্ড লঞ্চটি সদরঘাট কাঠপট্টি ঘাটে ভেড়ানোর আগ মুহূর্তে চাঁদপুরগামী ময়ূর-২ লঞ্চটি ধাক্কা দেয়। এতে সঙ্গে সঙ্গে তুলনামূলক ছোট মর্নিং বার্ড লঞ্চটি ডুবে যায়।

তাৎক্ষণিক উদ্ধার অভিযানে নামে ফায়ার সার্ভিস, কোস্টগার্ড, নৌবাহিনীর সদস্যরা। সকাল থেকে বিকেল পর্যন্ত চলা টানা অভিযানে ৩২ জনের মরদেহ উদ্ধার করা হয়েছে।

ডুবে যাওয়া মর্নিং বার্ড লঞ্চটি উদ্ধারের জন্যে জাহাজ প্রত্যয় উদ্ধারের জন্য আসার পথে পোস্তগোলা ব্রিজে আটকে যায়। এতে ব্রিজটির ক্ষতির আশঙ্কা করছে সড়ক ও জনপথ বিভাগ। এ কারণে কারণে ব্রিজটিতে এক পাশের যান চলাচল বন্ধ করে দিয়েছে।

এ ঘটনায় ৭ সদস্যের তদন্ত কমিটি গঠন করেছে নৌপরিবহন মন্ত্রণালয়। এছাড়া, মৃত প্রত্যেকের পরিবারকে দেড় লাখ টাকা ও তাৎক্ষণিক ভাবে দাফন করা জন্য ১০ হাজার টাকা দেয়া হবে বলে জানিয়েছেন নৌপরিবহন প্রতিমন্ত্রী।

গণমাধ্যমকর্মীদের করোনার নমুনা সংগ্রহের কেন্দ্র চালু
                                  

অনলাইন ডেস্ক :

সম্প্রচার সাংবাদিক কেন্দ্রের (বিজেসি) উদ্যোগে গণমাধ্যমের কর্মীদের করোনার নমুনা সংগ্রহের বুথ চালু করা হয়েছে।

দুর্যোগময় করোনা পরিস্থিতিতে ঝুঁকি নিয়ে মাঠপর্যায়ে কাজ করে যাচ্ছেন গণমাধ্যমের কর্মীরা। এরই মাঝে করোনায় আক্রান্ত হয়ে প্রাণ হারিয়েছেন দুই সাংবাদিক। আক্রান্ত প্রায় ৬০ জন। এমন পরিস্থিতিতে গণমাধ্যমকর্মীদের জন্য করোনা পরীক্ষা সহজ করতে স্বাস্থ্য অধিদফতরের অনুমতি নিয়ে রাজধানীতে আলাদা বুথ চালু করেছে বিজেসি।

নিবন্ধন করে গণমাধ্যমকর্মী এবং তাদের পরিবারের সদস্যরা এখানে করোনা পরীক্ষার সুযোগ পাবেন।

বিজেসির পক্ষ থেকে জানানো হয়, প্রথম দিন (সোমবার) নমুনা সংগ্রহ করা হয় ১২ জনের। এ কার্যক্রমে ল্যাব, কিট, টেকনিশিয়ান দিয়ে ব্যবস্থাপনায় সহযোগিতা করছে গাজী গ্রুপ।

চিকিৎসা সংক্রান্ত সহায়তা দিচ্ছে অলওয়েল ডটকম। এছাড়া সহোযোগিতা করছে ঢাকা উত্তর সিটি করপোরেশন।

বাংলাদেশে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত তিনজন শনাক্ত
                                  

অনলাইন ডেস্ক :

প্রথমবারের মতো তিন বাংলাদেশির মধ্যে নভেল করোনাভাইরাসের সংক্রমণ ধরা পড়েছে বলে জানিয়েছে সরকারের রোগতত্ত্ব, রোগ নিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা প্রতিষ্ঠান আইইডিসিআর। তাদের মধ্যে দুইজন পুরুষ এবং একজন নারী।

নভেল করোনাভাইরাসে আক্রান্ত তিনজনের মধ্যে দুইজন ইতালির দুইটি শহর থেকে সম্প্রতি দেশে ফিরেছেন বলে জানা গেছে। রবিবার আইইডিসিআরের পরিচালক মীরজাদী সেব্রিনা ফ্লোরা একটি ব্রিফিংয়ে জানান, তাদের সবার অবস্থাই এখন স্থিতিশীল। তিনজনকেই হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে।

নভেল করোনাভাইরাসে তিনজনের সংক্রমণের বিষয়ে শনিবার নিশ্চিত হওয়ার কথা জানিয়ে তিনি বলেন, ইতালি থেকে দুইজন দেশে আসার পর তাদের উপসর্গ দেখা দেয়। তারা আমাদের হটলাইনে ফোন দিলে আমরা তাদের নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষাগারে পাঠাই। সেখানে দুজনের পজেটিভ আসে।

বিনা খরচে দেশে পৌঁছবে কাতার প্রবাসীদের মৃতদেহ
                                  

অনলাইন ডেস্ক :

কাতার প্রবাসীদের মৃতদেহ বিনা পয়সায় বহন করছে বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্স। শুধুমাত্র কাতার বাংলাদেশ দূতাবাস থেকে মৃত ব্যক্তির একটি সার্টিফিকেট নিয়ে আসলেই বিনা খরচে দেশে পরিবারের কাছে মৃতদেহ পৌঁছে দেয়া হচ্ছে বলে জানালেন কাতারে নিযুক্ত বিমানের কান্ট্রি ম্যানেজার। এমন পদক্ষেপে স্বাগত জানিয়েছেন প্রবাসীরা।

কাতারে আগে কোন প্রবাসীর মৃত্যু হলে মৃতদেহ দেশে নেয়ার জন্য নিজেরাই বা কাতারি মালিককে খরচ বহন করতে হতো। এই ঝামেলার কারণে অনেক সময় বাধ্য হয়ে লাশ কাতারে দাফন করা হতো। বিমানের এমন উদ্যোগের ফলে স্বজনের লাশ দেশে নিয়ে যেতে পারছেন বলে জানালেন প্রবাসীরা।

এক প্রবাসী বলেন, আমার একজন ভগ্নীপতি কাতারে কিছুদিন আগে মারা গেছেন। মারা যাওয়ার পরে আমাকে তারা কিছু কাগজপত্র দিয়েছেন এবং বিমানে ওঠার পর তারা আমাকে ফ্রি দুইটা টিকিট দিয়েছেন। এজন্য লাশটা আমি দেশে পাঠাতে সক্ষম হয়েছি।

আরেক প্রবাসী বলেন, যেকোনো প্রবাসী মারা গেলে এয়ারপোর্টে গেলে তার পরিবারকে ৩৫ হাজার টাকা দেয়া হয় দাফনের জন্য। তার সঙ্গে আর ৩ লাখ টাকা দেয়া হয় তার পরিবারের খরচের জন্য।

বাংলাদেশ সরকারের সিদ্ধান্ত মোতাবেক কাতার প্রবাসীদের মৃতদেহ ফ্রিতে নেয়া হয়। যা নিজ খরচে নিলে বাংলাদেশের ৮০ হাজার টাকা খরচ হতো বলে জানালেন, বিমানের কান্ট্রি ম্যানেজার রেজাউল আহসান।

তিনি বলেন, এটা বাংলাদেশ সরকারের ইচ্ছায় এবং রাষ্ট্রীয় প্রতিষ্ঠান হিসেবে আমরা বাংলাদেশিদের এই সুযোগ সুবিধা দিয়ে আসছি।

কাতারে নিযুক্ত বাংলাদেশের রাষ্ট্রদূত আসুদ আহমেদ বলেন, যারা বিভিন্ন দুর্ঘটনায় মারা যান এবং নরমাল মৃত্যু হয়, তাদের মৃতদেহ সুপরিকল্পিতভাবে দেশে পাঠানোর জন্য ব্যবস্থা করেছি। এই বিষয়ে তারা যেনো কোনো ধরণের অব্যবস্থাপনার শিকার না হয়, সে দিকে লক্ষ্য রাখছি।

শুধু কাতার নয়, সরকারি খরচে সারাবিশ্বে ছড়িয়ে ছিটিয়ে থাকা প্রবাসী শ্রমিকের মৃত্যু হলে লাশটি যেন বিনা খরচে বহন করে প্রিয় জন্মভূমি বাংলাদেশে নিয়ে আসা হয় এমন দাবি প্রবাসীদের। সূত্র-সময় নিউজ।

শহীদ আসাদ দিবস আজ
                                  

নরসিংদী প্রতিনিধি :

সোমবার (২০ জানুয়ারি) শহীদ আসাদ দিবস। ১৯৬৯ সালের এইদিনে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের সামনে স্বৈরশাসন বিরোধী বিক্ষোভ মিছিলে পুলিশের গুলিতে নিহত হন নরসিংদীর কৃতী সন্তান আমানুল্লাহ মোহাম্মদ আসাদ। শোষণমুক্ত গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠাই ছিলো ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিহাস বিভাগের ছাত্র আসাদের রাজনৈতিক দর্শন। ঐতিহাসিক এ দিবসকে ঘিরে নরসিংদীতে বিভিন্ন সামাজিক, রাজনৈতিক ও সাংস্কৃতিক সংগঠন বিভিন্ন কর্মসূচি পালন করবে।১৯৪২ সালের ১০ জুন নরসিংদী জেলার মনোহরদী উপজেলার হাতিরদিয়া গ্রামে জন্মগ্রহণ করেন আমানুল্লাহ মোহাম্মদ আসাদ। তার পৈতৃক নিবাস নরসিংদীর শিবপুরের ধানুয়া গ্রামে। ১৯৬৯ সালের ২০ জানুয়ারি তৎকালীন স্বৈরশাসক আইয়ুব খানের নির্দেশে পুলিশ ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের সামনে স্বৈরশাসন বিরোধী বিক্ষোভ মিছিলে গুলি চালালে শহীদ হন ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইতিহাস বিভাগের মাস্টার্সের ছাত্র আসাদ। আসাদের মৃত্যুর খবর ছড়িয়ে পড়লে হাজার হাজার ছাত্র-জনতা ঢাকা মেডিকেলে ছুটে আসেন। আসাদ হত্যার প্রতিবাদে বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বের হওয়া মিছিলে যোগ দেন অসংখ্য সাধারণ মানুষ। আসাদ হত্যার প্রতিবাদে পূর্ব পাকিস্তান কেন্দ্রীয় ছাত্র সংগ্রাম কমিটি তিনদিনের শোক পালন শেষে ২৪ জানুয়ারি হরতালের ডাক দেয়। সেইদিনের মিছিলে আবারো পুলিশ গুলি চালালে শুরু হওয়া গণআন্দোলনে স্বৈরশাসক আইয়ুব খান পদত্যাগ করতে বাধ্য হন। বিক্ষুব্ধ জনতা আইয়ুব খানের নামে বিভিন্ন স্থাপনা ভেঙ্গে আসাদের নাম জুড়ে দেয়। গণঅভুত্থানের নায়ক আসাদকে স্মরণীয় করে রাখতে তার জন্মভূমি নরসিংদীর শিবপুরে প্রতিষ্ঠা করা হয় সরকারী শহীদ আসাদ কলেজ, শহীদ আসাদ কলেজিয়েট গার্লস হাইস্কুল, শহীদ আসাদ সড়কসহ বিভিন্ন প্রতিষ্ঠান। কিন্তু খোদ এসব প্রতিষ্ঠানের শিক্ষার্থীসহ নতুন প্রজন্ম শহীদ আসাদ ও তার রাজনৈতিক দর্শন সম্পর্কে তেমন কিছুই জানে না।প্রতি বছর শিবপুরের ধানুয়া গ্রামে শহীদ আসাদের সমাধিস্থলে ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা জানানোর মধ্য দিয়ে দায়িত্ব শেষ করেন রাজনৈতিকরা। পাঠ্যপুস্তকে রাষ্ট্রীয়ভাবে শহীদ আসাদের ইতিহাস তুলে না ধরায় আসাদ সম্পর্কে বর্তমান প্রজন্ম তেমন কিছু জানতে পারছে না বলে মনে করেন তার রাজনৈতিক সহযোদ্ধারা । শিবপুর শহীদ আসাদ কলেজিয়েট গার্লস হাইস্কুল এন্ড কলেজ এর অধ্যক্ষ আবুল হারিছ রিকাবদার বলেন, ঊণসত্তরের গণআন্দোলনের সূত্র ধরেই ১৯৭১ এর স্বাধীনতাযুদ্ধের শুরু এবং চূড়ান্ত বিজয় অর্জিত হয়। কিন্তু পাঠ্যপুস্তকে প্রকৃত ইতিহাস তুলে ধরার ব্যর্থতার কারণেই নতুন প্রজন্ম ঊনসত্তরের গণ অভ্যুত্থানের মহানায়ক শহীদ আসাদের ইতিহাস জানতে পারছে না।

৬ মাস মাতৃত্বকালীন ছুটি দিতে আবার প্রজ্ঞাপন জারি
                                  

অনলাইন ডেস্ক :

ব্যাংকের নারী কর্মীদের ছয় মাস মাতৃত্বকালীন ছুটি দেয়ার নির্দেশনা দিয়ে আবারো প্রজ্ঞাপন জারি করলো বাংলাদেশ ব্যাংক। সব ব্যাংক এই নির্দেশনা ঠিকমতো পালন না করায় নতুন করে নির্দেশনা দিয়েছে কেন্দ্রীয় ব্যাংক।

ব্যাংক কোম্পানি আইন, ১৯৯১ এর ৪৫(১) ধারায় অর্পিত ক্ষমতাবলে এ নির্দেশনা জারি করে কেন্দ্রীয় ব্যাংক। এতে বলা হয়েছে, স্থায়ী ও অস্থায়ী নারী কর্মকর্তা ও কর্মচারীর ক্ষেত্রে এ নির্দেশনা কার্যকর হবে। একজন কর্মী তার চাকরি জীবনে সর্বোচ্চ দুই বার ৬ মাস মেয়াদে মাতৃত্বকালীন ছুটি ভোগ করতে পারবেন।

কেন্দ্রীয় ব্যাংকের প্রজ্ঞাপনে আরো বলা হয়, নারী কর্মকর্তা-কর্মচারীদের মাতৃত্বকালীন ছুটির বছরে তাদের বার্ষিক কর্মমূল্যায়নের ক্ষেত্রে পূর্ববর্তী বছরের কর্মমূল্যায়ন অথবা পূর্ববর্তী তিন বছরের বার্ষিক কর্মমূল্যায়নের গড়ের মধ্যে যদি উত্তম হয় তা বিবেচনায় নিতে হবে।

২০১১ সালে ব্যাংকগুলোতে কর্মরত নারীদের জন্য মাতৃত্বকালীন ছুটি ছয় মাস করার নির্দেশ দেয় কেন্দ্রীয় ব্যাংক। আগে তারা ছুটি পেতেন চার মাস। এরপর ২০১৫ সালে ছুটিতে থাকা নারী কর্মকর্তা-কর্মচারীদের বার্ষিক কর্ম মূল্যায়নের ক্ষেত্রে আগের বছর বা পরের তিন বছরের গড়ের মধ্যে যেটি ভাল- তা বিবেচনায় নিতে বলা হয়।

ঢাকার রাস্তায় ‘মানব কুকুরে’র রহস্য উন্মোচন
                                  

অনলাইন ডেস্ক :

লোকটির গলায় শিকল বাঁধা। সেই শিকল ধরে আবার টেনে নিয়ে যাচ্ছেন এক তরুণী। আশপাশের মানুষ ছবি তোলায় ব্যস্ত। অনেকে এটাকে হিউম্যান ডগ বা মানব কুকুর বলছেন। কিন্তু কেন তিনি এভাবে হেঁটে যাচ্ছেন?

এমনই একটি ছবি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ভাইরাল হয়েছে। তা নিয়ে শুরু হয়েছে আলোচনা-সমালোচনা। এই চিত্র দেখা গিয়েছে রাজধানীর হাতিরঝিলে।

যে ব্যক্তি হিউম্যান ডগ সেজে হাঁটছেন তার নাম টুটুল চৌধুরী। আর যে নারী তাকে টেনে নিয়ে যাচ্ছেন তিনি সেঁজুতি। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের পেইন্টিং ও ড্রয়িংয়ের শিক্ষার্থী।

আসলে এটি একটি ‘পারফর্মিং আর্ট’। বাংলাদেশে এ ধরনের আর্ট দেখা যায় না বললেই চলে। পশ্চিমা ধারণার এই পারফর্মিং আর্ট প্রথম দেখা যায় অস্ট্রিয়ার ভিয়েনায়। ১৯৬৮ সালের ফেব্রুয়ারিতে প্রকাশ্য রাস্তায় ভ্যালি এক্সপোর্ট ও পিটার উইবেল এই পারফর্মিং আর্টে অংশ নেন। আর হাতিরঝিলের রাস্তায় পারফর্মিং আর্টের শিল্পীরা হলেন টুটুল ও সেঁজুতি।

ঢাকার রাস্তায় ‘মানব কুকুরে’র রহস্য উন্মোচন
ছবি: ফেসবুক

সেঁজুতি তার আর্টকে ‘সমাজতাত্ত্বিক’ ও ‘আচরণমূলক’ কেস স্ট্যাডি হিসেবে উল্লেখ করেছেন। তার মতে এই পারফর্মিং আর্টের উদ্দেশ্য হলো- কার্টুনে যেমন বিভিন্ন প্রাণীকে মানুষের মতো কথা বলা ও আচরণগতভাবে দেখানো হয় তেমনি এখানে মানুষকে প্রাণী চরিত্রে দেখানো হয়েছে।

সেঁজুতি বলেন, এই ছবিতে একজন পুরুষের গলায় রশি বেঁধে টেনে নিয়ে যাচ্ছে এক নারী। এটা আমাদের নৈতিক ও রাজনৈতিক স্থিতিশীলতা বা আরও ভালো কোনও সামাজিক অবস্থার চিত্র দেখায় না। বরং সমাজ আমাদের ওপর যে সিস্টেম চাপিয়ে দিয়েছে সেটাই ফুটে উঠেছে এই আর্টে। আমরা যে কাজটা করেছি এই কাজের প্রতি দৃষ্টিভঙ্গি এবং এই কাজটাকে সাধারণ মানুষ কীভাবে নিয়েছে সেটাই দেখতে চেয়েছি।

এ বিষয়ে অনেকে বলছেন, ন্যাশনাল জিওগ্রাফিক চ্যানেলে ট্যাবু নিয়ে একটি প্রোগ্রাম আছে। সেখানে কয়েকটি এপিসোডে এ ধরণের হিউম্যান ডগ দেখানো হয়েছে। যাকে আধুনিক দুনিয়ায় পুরাতন ক্রীতদাস প্রথাও বলা যায়। আপনি মানুষ কিনে তাকে দিয়ে যা ইচ্ছে, তাই করাতে পারেন। আধুনিক সভ্যতায় এটাকে ‘সাইকো অসভ্যতা’ও বলা যেতে পারে।

জেঁকে বসেছে শীত, ১০ ডিগ্রির নিচে নামবে তাপমাত্রা
                                  

অনলাইন ডেস্ক :

কমতে শুরু করেছে সারা দেশের তাপমাত্রা। এরইমধ্যে দেশের উত্তরের জেলা কুড়িগ্রামে জেঁকে বসেছে শীত। বুধবার দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা রেকর্ড করা হয়েছে কুড়িগ্রামের রাজারহাটে ১০ দশমিক ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস। আরও দুদিন সারা দেশের তাপমাত্রা কমতে থাকবে বলে জানিয়েছে আবহাওয়া অধিদপ্তর। এ সময় তাপমাত্রা ১০ ডিগ্রি সেলসিয়াসের নিচে নেমে আসবে। সেইসঙ্গে মৃদু থেকে মাঝারি ধরনের শৈত্যপ্রবাহ বয়ে যেতে পারে।

আবহাওয়াবিদরা জানান,২০, ২১ ও ২২ ডিসেম্বর দেশের কিছু কিছু জায়গায় প্রথম মৃদু শৈত্যপ্রবাহ বয়ে যেতে পারে। আর দ্বিতীয়টি ২৫ ডিসেম্বরের পর আসতে পারে। ২২ ডিসেম্বরের পর তাপমাত্রা বেড়ে যেতে পারে। আর ২৫ ডিসেম্বরের পর আবার মৃদু থেকে মাঝারি ধরনের শৈত্যপ্রবাহ পড়তে পারে।

আবহাওয়া অধিদপ্তরের আবহাওয়াবিদ ওমর ফারুক বলেন, দেশের বেশির ভাগ অঞ্চলের তাপমাত্রা কমে শীত অনুভূত হচ্ছে। আরও দুই তিন দিন তাপমাত্রা কমা অব্যাহত থাকবে। এ সময়ে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা কমে ১০ ডিগ্রি সেলসিয়াসের নিচে নেমে আসতে পারে। তবে ঢাকায় তাপমাত্রা এই পরিমাণ কমার কোনো সম্ভাবনা নেই। মূলত দেশের উত্তর-পশ্চিমাঞ্চল, যশোর, চুয়াডাঙ্গায় তাপমাত্রা কমতে থাকবে।

আবহাওয়া অধিদপ্তরের ওয়েবসাইট থেকে জানা যায়, আজ বুধবার ঢাকায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১৬ দশমিক ২ ডিগ্রি সেলসিয়াস। গতকাল মঙ্গলবার সন্ধ্যায় তাপমাত্রা ছিল ১৭ দশমিক ৬ ডিগ্রি সেলসিয়াস। চট্টগ্রামে তাপমাত্রা ১৭ দশমিক ৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস থেকে কমে ১৬ দশমিক ৭ ডিগ্রি সেলসিয়াস হয়েছে।

সিলেটে সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১৫ দশমিক ৪ থেকে নেমে আজ ১৪ দশমিক ৮ ডিগ্রি সেলসিয়াস রেকর্ড করা হয়েছে। ময়মনসিংহে ১৪ দশমিক ৬ থেকে কমে ১৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস, রাজশাহীতে ১৪ দশমিক ৩ থেকে কমে ১১ দশমিক ৪, খুলনায় ১৭ দশমিক ৪ থেকে কমে ১৫, বরিশালে ১৫ থেকে নেমে আজ তাপমাত্রা হয়েছে ১৪ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস। রংপুরের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা গতকালের মতো আজও ১৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস রয়েছে।

উগ্রবাদ প্রতিরোধে ৬০০ পুলিশকে প্রশিক্ষণ
                                  

অনলাইন ডেস্ক :

মাঠ পর্যায়ের পুলিশ অফিসারদের উগ্রবাদ দমনে ধারণা দিতে শুরু হয়েছে সপ্তাহব্যাপী উগ্রবাদ প্রতিরোধে বিশেষ প্রশিক্ষণ কর্মশালা। ৬০০ পুলিশ কর্মকর্তাকে এক সপ্তাহ করে এই প্রশিক্ষণ দেয়া হবে।

শনিবার সকালে রাজধানীর রাজারবাগ পুলিশ লাইন্সে ডিটেকটিভ ট্রেনিং স্কুলে এই কর্মশালার উদ্বোধন করেন সিআইডির অতিরিক্ত আইজিপি চৌধুরী আব্দুল্লাহ আল মামুন।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন ডিএমপির অতিরিক্ত পুলিশ কমিশনার (সিটিটিসি) মো. মনিরুল ইসলাম। উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন ডিটেকটিভ ট্রেনিং স্কুলের কমান্ডেন্ট মো. শাহাদাত হোসেন।

বাংলাদেশ পুলিশের সন্ত্রাস দমন ও আন্তর্জাতিক অপরাধ প্রতিরোধ কেন্দ্র নির্মাণ প্রকল্পের অর্থায়নে বাংলাদেশের প্রতিটি থানার অন্তত একজন সাব-ইন্সপেক্টর/তদন্তকারী কর্মকর্তাকে অন্তর্ভুক্ত করা হবে এই কর্মশালায়। এতে মোট ৬০০ জন সাব-ইন্সপেক্টর/তদন্তকারী কর্মকর্তাকে এই কর্মশালার মাধ্যমে উগ্রবাদ দমনে স্পষ্ট ধারণা দেয়া হবে। প্রতিটি ব্যাচে ৫০ জন কর্মকর্তা অংশ গ্রহণ করবেন। মোট ১২টি ব্যাচে ৬০০ জন কর্মকর্তাকে এক সপ্তাহ করে এ প্রশিক্ষণ দেয়া হবে।

উদ্বোধনী বক্তব্যে সিআইডি প্রধান চৌধুরী আব্দুল্লাহ আল মামুন বলেন, উগ্রবাদ প্রতিরোধে প্রশিক্ষণ কর্মশালাটি খুবই সময়োপযোগী। কর্মশালায় অংশ গ্রহণকারী কর্মকর্তারা উগ্রবাদ বিষয়ে এখান থেকে একটি স্পষ্ট ধারণা পাবেন, যা পরবর্তীতে স্ব-স্ব কর্মস্থলে অন্যান্য সহকর্মীদের সঙ্গে শেয়ারের মাধ্যমে সম্মিলিতভাবে উগ্রবাদ দমনে একটি ধারণা তৈরি হবে।

সংবাদদাতা আবশ্যক
                                  

প্রভাতী খবর ডেস্ক :

জাতীয় ’দৈনিক প্রভাতী খবর’ ঢাকা থেকে প্রকাশিত সরকারী মিডিয়া তালিকাভুক্ত একটি পত্রিকা । বর্তমানে মাল্টিকালারে নিয়মিত প্রকাশিত হচ্ছে এবং দেশের বিভিন্ন জেলা-উপজেলায় পৌছে যাচ্ছে ।
’রাজনীতিবিদ’-অর্থনীতিবিদ’-ব্যবসায়ী ও মিডিয়া ব্যাক্তি সহ অনেকে বলছেন আমাদের শুরুটা ভাল
হয়েছে । কিন্তু আমরা এখানে থেমে থাকতে চাই না । সুদীর্ঘ বিস্তৃত পথ পাড়ি দিয়ে সুউচ্চ শিখরে পৌছতে আমরা দৃঢ় প্রত্যয়ে এগিয়ে যেতে চাই । এজন্য আমরা মনে করি সুশিক্ষিত, সৎ কর্মঠও সাহসী কিছু সহযোদ্ধা প্রয়োজন। যারা বাস্তবতায় নিজেদের জীবনের উপলব্ধি ধরে রেখে জীবিকা অর্জন করে সমাজের জন্য, দেশের জন্য, দেশের নিপীড়িত,নির্যাতিত মানুষের জন্য, অন্যায়ের বিরুদ্ধে প্রতিবাদী হয়ে কাজ করবে । সেইসব দেশপ্রেমিক সংবাদকর্মীদের ‘দৈনিক প্রভাতী খবর’ চাচ্ছে । সাংবাদিকদের সমাজের মানুষ এখন ও শ্রদ্ধা করতে আগ্রহী । তাদের এ চাওয়া টুকু আমাদের ধরে রাখা উচিত । অন্ধকার সমাজে আমরা আলোর দিশারী হয়ে জেগে থাকতে চাই । দেশকে এগিয়ে নিতে চাই । আমরা দেশের প্রতিটি বিভাগ-জেলা-উপজেলা থেকে সংবাদকর্মী নিতে চাই, যারা আমাদের সমযোদ্ধা হয়ে সব সময় পাশে থাকবে । আগ্রহীগণ আমাদের ঠিকানায় অথবা ই-মেইলে জরুরী ভিত্তিতে ছবি ও পূর্ণাঙ্গ জীবন বৃত্তান্তসহ যোগাযোগ করুন ।
*
মোবাইল ‍:-০১৭১৬ ৯১১ ৫৭২
E-Mail-provatikhoborbd@gmail.com
*
www.dailyprovatikhobor.com
আমাদের সাথে থাকুন ।

 

বঙ্গবন্ধুর নামে ফিলিস্তিনে রাস্তা
                                  

অনলাইন ডেস্ক :

প্রাচীন ঐতিহ্যের শহর হেভরনের একটি রাস্তার নাম বাংলাদেশের জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নামে নামকরণের সিদ্ধান্ত নিয়েছে ফিলিস্তিন সরকার।

শনিবার আজারবাইজানের বাকু কংগ্রেস সেন্টারে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে সাক্ষাৎকালে এ কথা জানিয়েছেন ফিলিস্তিনের পররাষ্ট্র মন্ত্রী রিয়াদ মালকি। এসময় রাস্তার নাম ফলক উন্মেচন করতে শেখ হাসিনাকে ফিলিস্তিন সফরের আমন্ত্রণ জানান জানিয়েছেন তিনি।

পরে পররাষ্ট্র সচিব শহীদুল হক এ বিষয়ে সাংবাদিকদের ব্রিফ করেন। একইসময় প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিমও সাংবাদিকদের ব্রিফ করেন।

পররাষ্ট্র সচিব শহীদুল হক বলেন, তারা(ফিলিস্তিন সরকার) জানিয়েছে যে হেভরনে একটা রাস্তা বাংলাদেশের জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্মরণে তারা নামকরণ করবে। এ ব্যাপারে তারা সিদ্ধান্ত নিয়েছে। এ ব্যাপারে প্রধানমন্ত্রীকে আমন্ত্রণও জানানো হয়েছে।

ভেঙে যাওয়া বিয়ে দিয়ে ফের আলোচনায় খিলগাঁও জোনের সহকারী কমিশনার জাহিদুল ইসলাম
                                  

অনলাইন ডেস্ক :

রাজধানীর খিলগাঁওয়ে একটি সুপার শপ থেকে দুধ চুরি করতে গিয়ে ধরা পড়ে গণধোলাইয়ের শিকার হয়েছিলেন এক বেকার বাবা। একপর্যায়ে প্রকৃত ঘটনা জানতে পেরে ওই বাবাকে বাঁচাতে এগিয়ে যান ঢাকা মেট্রোপলিটন পুলিশের খিলগাঁও জোনের সহকারী কমিশনার জাহিদুল ইসলাম।

ওই ঘটনার বিস্তারিত তুলে ধরে নিজের ফেসবুকে পোস্ট করেন তিনি। যা পরে ভাইরাল হয়ে যায়। এবার তিনি পেশাগত দায়িত্বের বাইরে গিয়ে আরেকটি কাজ করে আলোচনায় এসেছেন।

আজ শনিবার তার ফেসবুকে একটি স্ট্যাটাসে জানা যায়- দু পক্ষের ঝামেলায় একটি বিয়ে প্রায় ভেঙে যাচ্ছিল, আর সেই বিয়ে নিজে দাঁড়িয়ে থেকে পড়িয়ে দেন তিনি।

বিস্তারিত জানুন তার ফেসবুক স্ট্যাটাসে-

পেশাগত দায়িত্বের বাইরেও সমাজের সাধারণ মানুষ হিসেবে পালন করা কিছু দায়িত্ব মনে প্রশান্তি এনে দেয়। এমনই একটা ঘটনা আজ শেয়ার করবো।

গত ১৭/১০/২০১৯ খ্রি: তারিখ রাতে মতিঝিল বিভাগের সেন্ট্রাল নাইট রাউন্ড ডিউটি করছিলাম। রাত আনুমানিক ১:৩০ এর দিকে খিলগাঁও কমিউনিটি সেন্টারে বিশৃংখলার খবর পাই। তাৎক্ষণিক ঘটনাস্থলে পৌঁছার পর জানতে পারি, বিয়ের অনুষ্ঠানে অনাকাঙ্ক্ষিত পরিস্থিতির উদ্ভব হওয়ায় বিয়েটা প্রায় ভেঙে যাচ্ছে। ইতোমধ্যে বিয়ের ভোজন পর্বও শেষ। দুই পক্ষের ঝামেলা দেখে কাজী সাহেবও সটকে পড়েছেন। বরপক্ষ খুবই উত্তেজিত! পরিস্থিতি ক্রমশ খারাপের দিকে যাচ্ছিল। বরপক্ষ বিয়ে না করেই বিয়ের আসর ছেড়ে চলে যাওয়ার প্রস্তুতি নিচ্ছেন! এমনই পরিস্থিতির এক পর্যায়ে কনের বাবা খুব ভেঙে পড়েন।

পরে বাধ্য হয়ে হস্তক্ষেপ করলাম। (দুঃখ প্রকাশ করছি; যে বিষয়টি নিয়ে তারা উত্তেজিত ছিল তা শেয়ার করতে পারছিনা।) প্রথমে বরের সাথে একান্তে কথা বললাম। বর আমাকে সোজাসাপ্টা জানিয়ে দিলো যে,আমি বিয়ে করতে রাজি কিন্তু আমার বাবা মা রাজি না থাকলে আমি বিয়ে করতে পারবোনা। এরপর বরের পিতা-মাতার সাথে কথা বললাম।

দুই পক্ষকে নিয়ে দীর্ঘক্ষণ আলোচনার পর পরিস্থিতি কিছুটা স্বাভাবিক হলে পুলিশ পাঠিয়ে কাজী সাহেবকে বিয়ের আসরে নিয়ে আসলাম। পরে রাত আনুমানিক ৩:৩০ ঘটিকার দিকে নিজে দাঁড়িয়ে থেকে বিবাহ অনুষ্ঠান সম্পন্ন করি।

আল্লাহ্ নব দম্পতিকে সুখে রাখুন..মানুষের জন্য কিছু করতে পারার মধ্যে যে আনন্দ তা জগতের অন্য কিছুতে নাই। দিনশেষে আত্মতৃপ্তি নিয়ে ঘুমাতে যাওয়া সকলের ভাগ্যে জোটে না....সেদিক থেকে আমি নিঃসন্দেহে ভাগ্যবান।


   Page 1 of 10
     করোনাভাইরাস
আরও ২৫ জনের মৃত্যু, আক্রান্ত ১,৪৪১ জন
.............................................................................................
করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ৩৭, শনাক্ত ১৬০৮ জন
.............................................................................................
করোনায় ৩২ জনের মৃত্যু, শনাক্ত ৬৯৮
.............................................................................................
করোনায় ২৪ ঘণ্টায় মৃত্যু ৩১, শনাক্ত ১২৯০
.............................................................................................
বুড়িগঙ্গায় লঞ্চডুবি: ১৩ ঘণ্টা পর একজনকে জীবিত উদ্ধার!
.............................................................................................
গণমাধ্যমকর্মীদের করোনার নমুনা সংগ্রহের কেন্দ্র চালু
.............................................................................................
বাংলাদেশে করোনাভাইরাসে আক্রান্ত তিনজন শনাক্ত
.............................................................................................
বিনা খরচে দেশে পৌঁছবে কাতার প্রবাসীদের মৃতদেহ
.............................................................................................
শহীদ আসাদ দিবস আজ
.............................................................................................
৬ মাস মাতৃত্বকালীন ছুটি দিতে আবার প্রজ্ঞাপন জারি
.............................................................................................
ঢাকার রাস্তায় ‘মানব কুকুরে’র রহস্য উন্মোচন
.............................................................................................
জেঁকে বসেছে শীত, ১০ ডিগ্রির নিচে নামবে তাপমাত্রা
.............................................................................................
উগ্রবাদ প্রতিরোধে ৬০০ পুলিশকে প্রশিক্ষণ
.............................................................................................
সংবাদদাতা আবশ্যক
.............................................................................................
বঙ্গবন্ধুর নামে ফিলিস্তিনে রাস্তা
.............................................................................................
ভেঙে যাওয়া বিয়ে দিয়ে ফের আলোচনায় খিলগাঁও জোনের সহকারী কমিশনার জাহিদুল ইসলাম
.............................................................................................
ভারতের চেয়ে ১৭ ধাপ এগিয়ে বাংলাদেশ
.............................................................................................
রাজস্ব ফাঁকি রোধে বিলাসবহুল গাড়ির মালিকদের আয়কর নথি যাচাই হচ্ছে
.............................................................................................
আরও ১৩ নিম্নমানের পণ্যের তালিকা দিল বিএসটিআই
.............................................................................................
রাষ্ট্রপ্রধান হিসেবে এরশাদের সেরা ১০০ অবদান
.............................................................................................
ছয় মাসে ধর্ষণের শিকার ৭৩১ নারী ও শিশু, হত্যা ২৬
.............................................................................................
দৈনিক প্রভাতী খবর পত্রিকায় সংবাদদাতা আবশ্যক
.............................................................................................
কেটে ফেলা হলো সেই সাহসী পুলিশ পারভেজের পা
.............................................................................................
সন্তানের জন্য দুধ চুরি, টাকা দিলেন পুলিশ কর্মকর্তা
.............................................................................................
ঘূর্ণিঝড় ফণীর কারণে ৫৩৬ কোটি টাকার ক্ষতি
.............................................................................................
ঘূর্ণিঝড় ফণী: সতর্ক সংকেত নেমেছে, সারাদেশে তাপমাত্রা বাড়ছে
.............................................................................................
ভয়াল ২৯ এপ্রিল আজ
.............................................................................................
হামলার হুমকি দিয়ে বাংলায় পোস্টার প্রকাশ করেছে আইএস
.............................................................................................
রমজানে নিত্যপণ্যের মূল্য নিয়ন্ত্রণে মাঠে থাকবে সরকারের একাধিক সংস্থা
.............................................................................................
অধ্যক্ষের যৌন নিপীড়নের বর্ণনা খাতায় লিখে রেখেছিলেন নুসরাত
.............................................................................................
না ফেরার দেশে চলে গেলেন সেই ফায়ারম্যান রানা
.............................................................................................
ডেবিট ও ক্রেডিট কার্ডেও পরিশোধ করা যাবে ট্রাফিক জরিমানা
.............................................................................................
জাহালমকে নিয়ে চলচ্চিত্র নির্মাণে নিষেধাজ্ঞা চাইল দুদক
.............................................................................................
স্বাস্থ্যঝুঁকি বাড়াচ্ছে জারের পানিতে
.............................................................................................
জাল নোট কারবারিদের কঠোরভাবে দমনে নতুন আইন করার উদ্যোগ
.............................................................................................
মার্চে কালবৈশাখী-তাপদাহ ও বন্যার পূর্বাভাস
.............................................................................................
১৫ এপ্রিলের মধ্যে রোহিঙ্গাদের ভাসানচরে স্থানান্তর
.............................................................................................
সাতটি পানি কোম্পানির লাইসেন্স স্থগিত, ৩টির বাতিল
.............................................................................................
ঝড়-বৃষ্টিতে বইমেলায় নষ্ট হাজারো বই
.............................................................................................
সংবাদদাতা ও বিজ্ঞাপন প্রতিনিধি আবশ্যক
.............................................................................................
অবসর জীবন টুঙ্গীপাড়ায় কাটাতে চান প্রধানমন্ত্রী
.............................................................................................
প্রতি বছর দেশে উৎপাদিত সবজি ও ফলের এক-তৃতীয়াংশ নষ্ট হচ্ছে
.............................................................................................
সমুদ্রপথে মালয়েশিয়া যাওয়ার সময় সৈকত থেকে ৩০ রোহিঙ্গা আটক
.............................................................................................
কক্সবাজারে রোহিঙ্গা ক্যাম্পে অ্যাঞ্জেলিনা জোলি
.............................................................................................
৯ জেলায় সড়কে প্রাণ হারালেন ১৭ জন
.............................................................................................
বেসরকারি বিশ্ববিদ্যালয়ের অনিয়ম খতিয়ে দেখতে মাঠে নামছে দুদক
.............................................................................................
ধনী বৃদ্ধির হারে বিশ্বে তৃতীয় বাংলাদেশ
.............................................................................................
বিপুল বকেয়ার কারণে বিমানকে বাকিতে জেট ফুয়েল দিতে রাজি নয় বিপিসি
.............................................................................................
কাজে না ফিরলে বেতন ও গার্মেন্ট বন্ধ: বিজিএমইএ
.............................................................................................
অবৈধ মোবাইল হ্যান্ডসেট চিহ্নিত করার উদ্যোগ
.............................................................................................

|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
|
সম্পাদক ও প্রকাশক : জিয়াউল হক ।
নির্বাহী সম্পাদক : মো: হাবিবুর রহমান । এম, এ হাসান : সম্পাদক কর্তৃক বিএস প্রিন্টিং প্রেস ৫২/২ টয়েনবি সার্কুলার রোড, সুত্রাপুর ঢাকা খেকে মুদ্রিত
ও ৬০/ই/১ পুরানা পল্টন (৭ম তলা) থেকে প্রকাশিত বার্তা ও বাণিজ্যিক কার্যালয় : ৫১,৫১/ এ রিসোর্সফুল পল্টন সিটি (৪র্থ তলা), পুরানা পল্টন, ঢাকা -১০০০।
ফোনঃ-০২-৯৫৫০৮৭২,-মোবাইলঃ- ০১৭১৬-৯১১৫৭২

E-mail: provatikhoborbd@gmail.com,provatikhobor2014@gmail.com,
Web: www.dailyprovatikhobor.com

   All Right Reserved By www.dailyprovatikhobor.com Developed By: Dynamic Solution IT Dynamic Scale BD & BD My Shop